ঢাকা, শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮

আজকের পত্রিকা

'যুক্তরাষ্ট্রে হামলা হলে দায়ী থাকবে ওই বিচারক'
অনলাইন ডেস্ক

যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে একের পর এক আইনি বাধার মুখোমুখি হয়ে হচ্ছে। এর ফলে তিনি তার নিজ দেশেরই বিচারক ও বিচারব্যবস্থার ওপর বেজায় চটেছেন।

সর্বশেষ সাত মুসলিম দেশের নাগরিকদের যুক্তরাষ্ট্রে ভ্রমণের ওপর ট্রাম্পের জারি করা নিষেধাজ্ঞা স্থগিত করেন দেশটির একটি ফেডারেল আদালত। আদালতের ওই স্থগিতাদেশের পর নিজের টুইটারে ওই বিচারককে বলা যায় হুমকি দিয়েছেন ট্রাম্প। আর বাধ্য হয়েই সীমান্তে ‘সতর্ক’ তল্লাশির পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ওই বিচারক ও বিচারব্যবস্থার প্রতি অনেক বেশি ক্ষিপ্ত হয়েছেন। তিনি তার এই ক্ষোভ ঢেলেছেন টুইটারে। এক টুইটে তিনি লেখেন, ‘ এটা আমি বিশ্বাস করতে পারছি না যে বিচারক দেশকে এমন বিপদে ফেলতে পারেন। যদি পরবর্তীতে কিছু ঘটে, তাহলে ওই বিচারক আর বিচারব্যবস্থা দায়ী থাকবে। জনতা খারাপ কিছুর জন্য তাকেও ঢালাওভাবে দোষ দেবে।’

ট্রাম্পের টুইটারের সূত্র ধরে এ নিয়ে আজ সোমবার সকালে বিবিসি একটি খবর প্রকাশ করে। সেখানে বলা হয়েছে, ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রের সীমান্তের কর্মকর্তাদের ‘খুবই সতর্ক’ থাকার পরামর্শ দিয়েছেন। টুইটে ট্রাম্প উল্লেখ করেন, ‘আদালত কাজ করাকে খুবই কঠিন করে দিচ্ছেন।’

বিডি-প্রতিদিন/ ৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭/ আব্দুল্লাহ সিফাত-১৬



এই পাতার আরো খবর