ঢাকা, শনিবার, ১৭ নভেম্বর, ২০১৮

আজকের পত্রিকা

বাবা-মাকে খুনের পর প্রেমিকাকে মমি!
অনলাইন ডেস্ক

প্রেমিকা আকাঙ্ক্ষা শর্মাকে মমি করে রাখা নিয়ে চলছিল জিজ্ঞাসাবাদ।একপর্যায়ে অভিযুক্ত ভারতের পশ্চিমবঙ্গের বাসিন্দা উদয়ন দাস স্বীকার করেছেন, বছর কয়েক আগে নিজের বাবা-মাকেও মেরে পুঁতে রেখেছে সে।

পশ্চিমবঙ্গে বাঁকুড়ার বাসিন্দা আকাঙ্ক্ষা শর্মার সঙ্গে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভোপালের উদয়নের পরিচয় এবং প্রেম গড়ে ওঠে। মাস ছয়েক আগে আমেরিকায় চাকরি করতে যাচ্ছেন জানিয়ে আকাঙ্ক্ষা ভোপালে চলে যান। সেখানে উদয়নের সঙ্গে থাকতে শুরু করেন। মাসখানেক পর থেকে খোঁজ মিলছিল না আকাঙ্ক্ষার।

সম্প্রতি জানা যায়, আকাঙ্ক্ষাকে খুন করে পাঁচ ফুট বাই তিন ফুটের ট্রাংকে লাশ ভরে তাতে সিমেন্টের বেদি করে রেখে দিয়েছিল উদয়ন। বৃহস্পতিবার রাতে পুলিশি অভিযানে এ ঘটনা ফাঁস হয়।

প্রথমে উদয়ন নামের সেই যুবকের দাবি ছিল, তার বাবা মারা গেছেন, আর মা থাকেন আমেরিকায়। জিজ্ঞাসাবাদে শেষ পর্যন্ত বাবা-মাকে হত্যার কথাও স্বীকার করে উদয়ন। উদয়ন জানায়, ২০১০ কিংবা ২০১১ সাল নাগাদ বাবা-মাকে খুন করে নিজেদের বাড়ির বাগানেই পুঁতে রেখেছে সে। তবে এত কাণ্ড উদয়ন কেন ঘটিয়েছে, তা জানা যায়নি।

বিডি প্রতিদিন/৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭/ফারজানা



এই পাতার আরো খবর