ঢাকা, বুধবার, ১৪ নভেম্বর, ২০১৮

আজকের পত্রিকা

সংসদের চত্বরে সুরঞ্জিতের শেষ বিদায়
অনলাইন ডেস্ক

বর্ষীয়ান আওয়ামী লীগ নেতা সুরঞ্জিত সেনগুপ্তের মরদেহে শেষ শ্রদ্ধা জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সাতবার সংসদ সদস‌্য হিসেবে সুনামগঞ্জের মানুষের প্রতিনিধিত্ব করা এ রাজনীতিককে জাতীয় সংসদের চত্বরে শেষ বিদায় জানালেন তার দীর্ঘদিনের রাজনৈতিক সঙ্গী, মন্ত্রিসভার সদস্য, সংসদ সদস্য, সংসদ সচিবালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারী, আওয়ামী লীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতা-কর্মী ছাড়াও বিভিন্ন রাজনৈতিক ও সামাজিক সংগঠনের নেতারা।

বরেণ্য এ রাজনীতিকের মরদেহ রবিবার বিকাল ৩টার দিকে জাতীয় সংসদের দক্ষিণ প্লাজায় আনা হয়।

রাষ্ট্রপ্রধান ও সরকার প্রধানের শ্রদ্ধা জানানোর আগে একাত্তরের মুক্তিযোদ্ধা সুরঞ্জিতের প্রতি জানানো হয় রাষ্ট্রীয় সম্মান।

কফিনে প্রথমে ফুল দেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ; তারপর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এরপর স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরী ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান।

আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে দলীয় সভানেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সুরঞ্জিতের মরদেহে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানো হয়।

ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বী মিয়া, বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের পক্ষ থেকেও প্রয়াত এই সংসদ সদস‌্যের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়।

রামকৃষ্ণ মিশনের অধ্যক্ষ ধ্রুবেষানন্দ মহারাজ এ সময় বিশেষ প্রার্থনা করেন।

শ্রদ্ধা জ্ঞাপন অনুষ্ঠানে সুরঞ্জিতের জীবনী পড়ে শোনান সংসদের প্রধান হুইপ আ স ম ফিরোজ। পরে সুরঞ্জিতের ছেলে সৌমেন সেনগুপ্ত বক্তব্য দেন।

তিনি বলেন, “আমার বাবা সারা জীবন প্রগতিশীল, অসাম্প্রদায়িক রাজনীতি করেছেন। সবসময় মানুষের উপকার করেছেন। কেউ কোনো সমস্যা নিয়ে গেলে তার কাছ থেকে খালি ফিরতেন না। বাবার মৃত্যুতে আমি এখন অভিভাবকহীন। তবে আমি নিজেকে অভিভাবকহীন ভাবছি না। আমাদের পরিবারের সঙ্গে সব সময় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আছেন। আমাদের এই ক্রাইসিস টাইমে তিনি আমাদের পাশে থাকবেন আশা করি।”

জাতীয় পার্টি, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ), বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি, জাতীয় পার্টি (জেপি), সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির পক্ষ থেকেও সুরঞ্জিত সেনগুপ্তের কফিনে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানো হয়। বিএনপির পক্ষ থেকে শেষ শ্রদ্ধা জানান স্থায়ী কমিটির সদস্য মওদুদ আহমদ। সাবেক আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুল লতিফ সিদ্দিকী, কৃষক, শ্রমিক, জনতা লীগের সভাপতি কাদের সিদ্দিকীও এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

আইন, বিচার ও সংসদ-বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত ৭১ বছর বয়সে রবিবার ভোররাতে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান।

সোমবার সকালে হেলিকপ্টারে করে সুরঞ্জিত সেনগুপ্তের মরদেহ সিলেটে নেওয়া হবে। সেখানে শ্রদ্ধা নিবেদনের পর দুপুরে নেওয়া হবে সুনামগঞ্জের দিরাইয়ে, তার গ্রামের বাড়িতে। বিকাল ৩টায় সেখানেই হবে তার শেষকৃত্য।

বিডি-প্রতিদিন/এস আহমেদ



এই পাতার আরো খবর