ঢাকা, বুধবার, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৮

আজকের পত্রিকা

পুনে টেস্ট
প্রথম দিনটা ভারতের
ক্রীড়া ডেস্ক

বহুল প্রতীক্ষিত ভারত-অস্ট্রেলিয়া টেস্ট শুরু হলো। লড়াই শুরু করলেন বিশ্বের সেরা দুই ব্যাটসম্যান বিরাট কোহলি ও স্টিভেন স্মিথ। লড়াই শুরু হলো রবীচন্দন অশ্বিন, রবীন্দ  জাদেজা, জশ হ্যাজলওডের। বিশসেরা দুই দল ও বিশসেরা ক্রিকেটারদের লড়াইয়ে অভিষেক হলো পুনের মহারাস্ট্র ক্রিকেট স্টেডিয়ামের। এতসব পরিসংখ্যানের টেস্টের প্রথম দিনেই কিন্তু রশিটা নিজেদের হাতে নিয়ে নিয়েছে ভারত। স্বাগতিকের নিয়ন্ত্রিত বোলারদের দুর্দান্ত বোলিংয়ে কোনোরকম প্রথম দিন পার করেছে অস্ট্রেলিয়া। টেল এন্ডার মাইকেল স্টার্কের দৃঢ়তায় দিন পার করলেও ২৫৬ রান তুলতে উইকেট হারিয়েছে ৯টি।

উইকেট যে স্পিনারদের হবে, এর কোনো আগাম ইঙ্গিত মিলেনি। কাল দিনের দ্বিতীয় ওভারেই অশ্বিনকে বোলিংয়ে এনে বিস্মিত করেন বিরাট কোহলি। শুরু করেন ঈশান্ত শর্মা। পরের ওভারেই অশ্বিন। আর তখন থেকেই উইকেটে ঘুরতে শুরু করেছে বল। বল উইকেটে পড়তেই ধুলোর ওড়োওড়ি। টার্ন ছাড়াও আনইভেন বাউন্স ছিল উইকেটে। এমন উইকেটে ব্যাটিং করা রীতিমতো কষ্টকর। সেই কষ্টকে প্রায় জিতেই নিয়েছিলেন অসি ব্যাটসম্যানরা। প্রথম সেসনটা মাত্র এক উইকেট হারিয়ে পার করে দেন। এক সময় স্কোর কার্ডে জ্বলজ্বল করছিল ১ উইকেটে ১১৯। দলীয় ৮২ রানের মাথায় ওয়ার্নার ফিরে যান সাজঘরে। ওই একই রানে রিটায়ার্ট হার্ট হন রেনশ। যদিও পরে ব্যাটিং করতে নেমে ৬৮ রানের ইনিংস খেলেন তিনি। সেটাই অসি ইনিংসে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ। শেষ দিকে মাইকেল স্টার্ক ৫৭ রানের ইনিংস খেললে অস্ট্রেলিয়ার স্কোর আড়াইশ’র ঘর পেরোয়। স্পিন ধরায় মিডিয়ায় মুখোমুখিতে লিজেন্ড ক্রিকেটার শেন ওয়ার্ন, ‘উইকেটে যেভাবে টার্ন করছে, তাতে আমি রীতিমতো বিস্মিত।’

ভারতীয় স্পিনার ও পেসারদের সামলে রেনশ টেকনিক ও টেম্পারমেন্টের প্রয়োগ দেখিয়ে ৬৮ রানের ইনিংস খেলেন ১৫৬ বলে ১০ চার ও এক ছক্কায়। স্টার্ক ৫৭ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেন ৫৮ বলে ৩ ছক্কা ও ৫ চারে। টেস্টে এটি স্টার্কের নবম হাফ সেঞ্চুরি। ভারতের পক্ষে পেসার উমেশ যাদব দুরন্ত বোলিং করে ৩২ রানের খরচে নেন ৪ উইকেট। অশ্বিন, জাদেজা ২ টি করে উইকেট নেন।



এই পাতার আরো খবর