Bangladesh Pratidin

ফোকাস

  • চকবাজারে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে ৭০ জনের মরদেহ উদ্ধার, আরও থাকতে পারে: আইজিপি
প্রকাশ : ১৫ জানুয়ারি, ২০১৯ ১৪:৩৫ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ১৫ জানুয়ারি, ২০১৯ ১৭:৫৯
শাবিতে শিক্ষার্থীর আত্মহত্যার ঘটনায় তদন্ত কমিটি
শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি
শাবিতে শিক্ষার্থীর আত্মহত্যার ঘটনায় তদন্ত কমিটি

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থী তাইফুর রহমান প্রতীকের আত্মহত্যার ঘটনায় ৩ সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। প্রতীকে জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং এন্ড বায়োটেকনোলজি (জিইবি) বিভাগের ২০১১-১২ বর্ষের শিক্ষার্থী ছিলেন। 

মঙ্গলবার বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ফরিদ উদ্দীন আহমেদ বিষয়টি নিশ্চিত করেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের এগ্রিকালচার এন্ড মিনারেল সায়েন্স ফ্যাকাল্টির ডিন প্রফেসর ড. মোহাম্মদ বেলাল উদ্দীনকে প্রধান করে এই কমিটি ঘোষণা করা হয়। কমিটির অন্যান্য সদস্যরা হলেন গণিত বিভাগের প্রফেসর ড. মো আনোয়ারুল ইসলাম ও সহকারী প্রক্টর মো. সামিউল ইসলাম।

এদিকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রতীকের আত্মহত্যার জন্য শাবির জিইবি বিভাগের শিকদের দায়ী করেছেন তার বড় বোন ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কমিউনিকেশন ডিসঅরডার বিভাগের শিক্ষক শান্তা তাওহিদা। অনার্সে ১ম শ্রেণিতে ১ম হওয়া হওয়া সত্ত্বেও প্রতীককে মাস্টার্সে সুপারভাইজার না দেয়া এবং বিভিন্ন কোর্সে কম নাম্বার দেয়ার অভিযোগ করেন শান্তা তাওহিদা।

এ ব্যাপারে জিইবি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক শামসুল হক প্রধান বলেন, সুপারভাইজার না দেয়া বিষয়ে আমি কিছু বলতে পারছি না। আমি কিছুদিন হল বিভাগীয় প্রধানের দায়িত্বে এসেছি। এ বিষয়ে তদন্ত করা হবে।

অন্যদিকে প্রতীকের বন্ধু ফাহমিদ হোসেন ভূঁইয়া জানান, প্রতীক কয়েকদিন ধরে ব্যক্তিগত কিছু সমস্যা নিয়ে হতাশায় ছিল এবং বন্ধুদের সাথেও যোগাযোগ কমিয়ে দিয়েছিল।

উল্লেখ, সোমবার বিকেলে নগরীর কাজলশাহ এলাকার একটি বাসা থেকে পুলিশ প্রতীকের ফ্যানে ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে। 

বিডি প্রতিদিন/ফারজানা

আপনার মন্তব্য

up-arrow