Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ২০:২২ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ২০:৩৬
তিন শর্তে চবিতে ছাত্রলীগের অবরোধ স্থগিত
নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম
তিন শর্তে চবিতে ছাত্রলীগের অবরোধ স্থগিত

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) ছাত্রলীগ একাংশের ডাকা অনির্দিষ্টাকালের অবরোধ তিন শর্তে স্থগিত করেছে। গত মঙ্গলবার রাত থেকে ছাত্রলীগ অবরোধ স্থগিত করে।

তাছাড়া চবি প্রক্টর কার্যালয় এবং বিভিন্ন স্থানে ভাংচুরের ঘটনায় অজ্ঞাতনামা আসামি করে গত মঙ্গলবার রাতে হাটহাজারি থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে কর্তৃপক্ষ। একই সঙ্গে প্রক্টররের কার্যালয়, শিক্ষক বাস, বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন স্থানে ভাংচুর এবং সাংবাদিকদের ওপর হামলার ঘটনায় উদ্বেগ জানিয়েছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি, চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়ন।

ছাত্রলীগের তিন শর্তের মধ্যে আছে, নতুন করে কাউকে আটক ও মামলা না দেয়া, আটককৃতদের মুক্তি দেয়া এবং প্রক্টরের অপসারণের বিষয়ে ভিসির বিবেচনার আশ্বাস।    

চবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. ইফতেখার উদ্দীন চৌধুরী বলেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয়ের সম্পদ ভাংচুরের ঘটনায় নিয়ম অনুযায়ী মামলা দায়ের করা হয়েছে। একই সঙ্গে একটি তদন্ত কমিটি করে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। তিনি বলেন, ‘তাদের দাবিগুলো যদি যৌক্তিক হয় সেক্ষেত্রে বিবেচনা করার আশ্বাস দিয়েছি।’

হাটহাজারি সার্কেল অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আব্দুল্লাহ আল মাসুম বলেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয়ে ভাংচুরের ঘটনা অজ্ঞাতনামা আসামি করে একটি মামলা দায়ের করেছে চবি কর্তৃপক্ষ। এর আগে সংঘর্ষের পর আটকৃতদের বিরুদ্ধে যাচাই বাছাই করে কোন অভিযোগ না পাওয়া তাদের ছেড়ে দেয়া হয়েছে।’

ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আলমগীর টিপু বলেন, ‘আমরা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশসিনকে তিনটি দাবি দিয়েছিলাম। এর মধ্যে দুটি পূরণ করা হয়েছে এবং একটি পূরণে আশ্বাস দিয়েছেন। তাই অবরোধ স্থগিত করা হয়েছে।’          

প্রসঙ্গত, গত সোমবার তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক অনুসারীদের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষে পুলিশের এক নায়েকসহ পাঁচজন আহত হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রক্টরের কার্যালয়, কয়েকটি বিভাগের শ্রেণিকক্ষ, কেন্দ্রীয় ব্যায়ামাগার, বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রেস, প্রক্টর ও সাংবাদিকে গাড়িসহ মোট ১৬ টি গাড়ি ভাংচুর করে তারা। ওইদিন রাতে উত্তেজনা বিরাজ করলে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন তিন হলে অভিযান চালিয়ে দু’টি এলজি, রামদা ও পাথরসহ কয়েক বস্তা দেশিয় অস্ত্র উদ্ধার করে। গত মঙ্গলবার আবাসিক হলে নেতাকর্মীদের নির্যাতনে প্রক্টরের সম্পৃক্ততার অভিযোগ তুলে ছাত্রলীগ তার অব্যাহতি চেয়ে অবরোধের ডাক দেয়।

বিডি-প্রতিদিন/ সালাহ উদ্দীন

আপনার মন্তব্য

up-arrow