Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২১:৪৮ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২১:৪৯
১৫ মার্চ বাম মোর্চার জ্বালানি মন্ত্রণালয় ঘেরাও
অনলাইন ডেস্ক
১৫ মার্চ বাম মোর্চার জ্বালানি মন্ত্রণালয় ঘেরাও
সংগৃহীত ছবি

গ্যাসের দাম বৃদ্ধির ঘোষণার প্রতিবাদে ডাকা অর্ধদিবস হরতালে পুলিশের লাঠিচার্জ, টিয়ার শেল ও গ্রেফতারের নিন্দা জানিয়ে পরবর্তী কর্মসূচি ঘোষণা করেছে গণতান্ত্রিক বাম মোর্চা। এর মধ্যে ১৫ মার্চ জ্বালানি মন্ত্রণালয় ঘেরাওয়ের কর্মসূচি রয়েছে।

গ্যাসের দাম বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত বাতিলের দাবিতে গণতান্ত্রিক বাম মোর্চা ও বাসদ-সিপিবির আহ্বানে মঙ্গলবার ঢাকা মহানগরীতে অর্ধদিবস হরতাল কর্মসূচি পালিত হয়। এরপর বেলা ১১টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে সমাবেশে গণতান্ত্রিক বাম মোর্চা সমন্বয়ক ফিরোজ আহমেদ নতুন এই কর্মসূচি ঘোষণা করেন।

জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে সমাবেশে গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়কারী জোনায়েদ সাকি, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পর্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক, বিপ্লবী কমিউনিস্ট পার্টির সাধারণ সম্পাদক মোশাররফ হোসেন নান্নু, গণতান্ত্রিক বিপ্লবী পার্টির সাধারণ সম্পাদক মোশরেফা মিশু, সমাজতান্ত্রিক আন্দোলনের আহবায়ক হামিদুল হকসহ বাম মোর্চার কেন্দ্রীয় নেতারা বক্তব্য রাখেন।

এর আগে, সকালে হরতালের সমর্থনে শাহবাগে প্রগতিশীল ছাত্র জোট শাহবাগ মোড় অবরোধ করে। এ সময় পুলিশ ছাত্রজোটের মিছিলের কাঁদানে গ্যাস, জলকামান ব্যবহার ও লাঠিচার্জ করে। এতে আহত হন ছাত্র ফেডারেশনের সমাজকল্যাণ সম্পাদক সাদিক রেজাসহ জাফরিন, মাসুদ, ইভা, মিতুসহ প্রগতিশীল ছাত্র জোটের আরও অনেক নেতাকর্মী।

এছাড়াও ছাত্রফ্রন্টের সাধারণ সম্পাদক নাসিরউদ্দীন প্রিন্স, পলাশ, ভোজন, রাহাত, জাহাঙ্গীর, নয়নসহ প্রগতিশীল ছাত্র জোটের বেশ কয়েকজন নেতাকর্মীকে মিছিল থেকে আটক করে পুলিশ।

বিডি-প্রতিদিন/২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭/মাহবুব

আপনার মন্তব্য

up-arrow