Bangladesh Pratidin

ঢাকা, রবিবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৭

ঢাকা, রবিবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৭
প্রকাশ : ২ মার্চ, ২০১৭ ১৭:১৩ অনলাইন ভার্সন
আপডেট :
টঙ্গীতে যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে নির্যাতন
টঙ্গী প্রতিনিধি:
টঙ্গীতে যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে নির্যাতন

গাজীপুরের টঙ্গী তিস্তার গেট এলাকায় যৌতুকের দাবিতে রুমে আটকে রেখে চৈতী (২২) নামে এক গৃহবধূকে স্বামী সোহেল কর্তৃক নির্যাতনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। খবর পেয়ে টঙ্গী থানার এসআই বেলাল  ঘটনাস্থলে পৌঁছে ওই গৃহবধূকে উদ্ধার করেন।

এঘটনায় গত বুধবার রাতে টঙ্গী থানায় একটি মামলা হয়েছে। ঘটনার পর থেকে সোহেল পলাতক রয়েছে।

গৃহবধূ চৈতীর চাচী সুমি জানান, গত দেড় বছর পূর্বে ময়মনসিংহ জেলার হালুয়াঘাটের উত্তরখয়ড়াকুডি গ্রামের হুমায়নের মেয়ে চৈতীর সাথে পারিবারিকভাবে সোহেলের বিয়ে হয়। বিয়ের কিছুদিন যাওয়ার পর যৌতুক লোভী সোহেল পাঁচলাখ টাকা যৌতুকের দাবি করে আসছে। এ নিয়ে উভয়ের মাঝে বেশ কিছুদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিলো। এরই জের ধরে বুধবার সোহেল চৈতীকে বাসার রুমে আটকে নির্যাতন চালায়। পরে স্থানীয় লোকজন বিষয়টি টের পেয়ে পুলিশকে খবর দিলে এসআই বেলাল চৈতীকে উদ্ধার করে। চৈতীর চাচী সুমি আরো জানান, সোহেল চৈতীকে বিয়ে করার পূর্বে আরো দুইটি বিয়ে করে। ওই বিয়ের খবর গোপন রেখে চৈতীকে আবার বিয়ে করে।

বিয়ে করার পর যৌতুকের জন্য শুরু হয় নির্মম নির্যাতন।
এবিষয়ে সোহেলের সাথে যোগাযোগ করে তাকে পাওয়া যায়নি। এব্যাপারে থানার ইন্সেপেক্টর (তদন্ত) হাসানুজ্জামান এর সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, এঘটনায় থানায় মামলা। অভিযুক্ত হোসেলকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

বিডি প্রতিদিন/ সালাহ উদ্দীন

আপনার মন্তব্য

up-arrow