Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ১৩:৫০ অনলাইন ভার্সন
বরিশালে বিপুল পরিমাণ জাল দলিল-সিলসহ আটক ৪
নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল:
বরিশালে বিপুল পরিমাণ জাল দলিল-সিলসহ আটক ৪

বরিশালে বিপুল পরিমাণ জাল দলিল, বৃটিশ ও পাকিস্তান আমলের স্ট্যাম্প, বিচারকসহ বিভিন্ন সরকারী কর্মকর্তারদের সিল, ওয়ারেন্ট এবং তালাকনামাসহ ৪ জনকে আটক করেছে পুলিশ। সোমবার গভীর রাতে বরিশালের বানারীপাড়া এবং নগরীর চকবাজার ও বগুড়া রোডের বিভিন্ন বাসায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে জেলা পুলিশ। 

আটককৃতরা হলেন বানারীপাড়ার ইলুহার এলাকার মৃত একরাম আলী তালুকদারের ছেলে আব্দুল মন্নান তালুকদার, মেহেন্দিগঞ্জের আলীমাবাদ গ্রামের আবুল হোসেন চৌকিদারের ছেলে মো. বাবুল চৌকিদার, উজিরপুরের কেশবকাঠী এলাকার মৃত করিম হাওলাদারের ছেলে শাহজাহান হাওলাদার এবং আগৈলঝাড়ার চাত্রিশিরা গ্রামের মৃত রহিম উদ্দিন মৃধার ছেলে মো. নজর আলী মৃধা। 

এদের মধ্যে প্রথম ৩ জন যথাক্রমে বরিশালের অ্যাডভোকেট আলমগীর হোসেন, অ্যাডভোকেট আশরাফ হোসেন এবং অ্যাডভোকেট আব্দুল মজিদ ঢালীর সহকারী (মহুরী) হিসেবে দির্ঘদিন ধরে কাজ করে আসছিলেন। বুধবার সকাল ১১টায় বরিশাল জেলা পুলিশ লাইনসের ইন সার্ভিস ট্রেনিং সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এই তথ্য জানান পুলিশ সুপার মো. সাইফুল ইসলাম। 

তিনি বলেন, আটক ৪ জন দীর্ঘদিন ধরে বিচারকসহ বিভিন্ন সরকারী অফিস প্রধানদের সিল ব্যবহার করে জাল দলিল, ভুয়া ওয়ারেন্ট, ভুয়া রায়ের কপি, তালাকনামাসহ অন্যান্য কাগজপত্র জালিয়াতি করে জনসাধারণের সাথে প্রতারণা করে আসছিলো। বানারীপাড়া থানায় পাঠানো একটি ভুয়া ওয়ারেন্টের উৎস্য অনুসন্ধান করতে গিয়ে সন্ধান মেলে এই প্রতারক চক্রের। অধিকতর গোয়েন্দা তথ্যের মাধ্যমে তাদের প্রতারণার বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে গত সোমবার গভীর রাতে জেলা পুলিশের একটি বিশেষ দল বানারীপাড়ার ইলুহার গ্রামের আলী আকবার মিয়ার ভাড়াটিয়া মন্নান তালুকদারের বাসায় অভিযান চালায়। এ সময় বিপুল পরিমান জাল দলিল, বৃটিশ ও পাকিস্তান আমলের স্ট্যাম্প, বিভিন্ন সরকারী কর্মকর্তারদের সিল, ওয়ারেন্ট এবং তালাকনামাসহ মন্নান তালুকদারকে আটক করে পুলিশ। 

পরে তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী ওই রাতেই বরিশাল নগরীর বগুড়া রোড এবং চকবাজার রোডের দুটি বাসায় অভিযান চালিয়ে বাবুল চৌকিদার, শাহজাহান হাওলাদার এবং নজর আলী মৃধাকে জাল দলিল, মৌজা নকশা, পর্চা, স্ট্যাম্প ফলি, ১৯০০ সালের পঞ্জিকা, বিভিন্ন সরকারী কর্মকর্তাদের সিল, এমনকি শাপলা সিলসহ আটক করে। 

পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আটককৃতরা তাদের কয়েকজন সহযোগী এবং পৃষ্ঠপোষকদের নাম প্রকাশ করেছেন। কিন্তু তদন্তের স্বার্থে এখনই তাদের নাম প্রকাশ করতে চায়নি পুলিশ। 

আটক ৪ জনকে বানারীপাড়া থানায় সোপর্দ করে একটি প্রতারণা মামলা দায়ের করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন পুলিশ সুপার মো. সাইফুল ইসলাম। 


বিডি প্রতিদিন/১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮/হিমেল

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow