Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ৬ মার্চ, ২০১৮ ১০:৪৩ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ৬ মার্চ, ২০১৮ ১০:৪৫
নালা ও ফুটপাথে বিদ্যুতের খুঁটি!
রেজা মুজাম্মেল, চট্টগ্রাম
নালা ও ফুটপাথে বিদ্যুতের খুঁটি!
bd-pratidin

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক) নগরকে আলোকিত করতে সোলার ও এলইডি লাইট বসানোর উদ্যোগ নেয়। কিন্তু খুঁটিগুলো সড়কের একপাশে স্থাপন না করে বসানো হচ্ছে ফুটপাথ, ড্রেন ও নালায়। এতে বর্ষা মৌসুমে পানি প্রবাহে বাধা, দুর্ঘটনাসহ নানা সমস্যা দেখা দেওয়ার আশঙ্কা আছে। অপরিকল্পিত এবং সমন্বয়হীনতার কারণে ইতিবাচক এ উদ্যোগও প্রশ্নবিদ্ধ হচ্ছে। 

অভিযোগ উঠেছে, নগরীর ফুটপাথ ও রাস্তার দেখভাল করে চসিক। কিন্তু এখন চসিক নিজেই ফুটপাথ ও ড্রেনে বিদ্যুতের খুঁটি স্থাপন করছে। ফলে সংকুচিত হচ্ছে পথচারীর পথ। বাধাগ্রস্ত হবে ড্রেন দিয়ে পানি চলাচল। এমনটি হলে আগামী বর্ষা মৌসুমে জলাবদ্ধতাসহ নানা দুর্ভোগ পোহাতে হবে নগরবাসীকে। ড্রেন-নালা দিয়ে পানি প্রবাহিত হলে বাধাগ্রস্ত হয়ে জলাবদ্ধতা আরও প্রকট হবে। অন্যদিকে নগরের নালা ও ড্রেনগুলো নিয়মিত পরিষ্কার করা হয় না। ফলে এখানে জমে থাকে নানা প্রকারের বর্জ্য। কিন্তু এখন বিদ্যুতের খুঁটি স্থাপনের ফলে পানি প্রবাহ আরও বেশি প্রকট হবে বলে জানা যায়।

চসিকের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী (বিদ্যুৎ) ও প্রকল্প পরিচালক মাহফুজুল হক বলেন, ‘কিছু কিছু স্থানে নালা ও ফুটপাথের ওপর পুল বসানো হয়েছে বলে শুনেছি। তবে এগুলো আমরা স্থানান্তর করব। ইতিমধ্যে কিছু স্থানে খুঁটি স্থানান্তর করা হয়েছে। স্থান পাওয়া না গেলে প্রয়োজনে আমরা ব্যক্তি মালিকানাধীন জায়গা কিনে সুবিধাজনক স্থানে পুলগুলো স্থানান্তর করব। নগরবাসীর অসুবিধা হয় এমন কোনো কাজ চসিক করবে না।’        

চসিকের প্রকৌশল বিভাগ সূত্রে জানা যায়, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি মন্ত্রণালয়ের অধীনে ‘সোলার স্ট্রিট লাইটিং প্রোগ্রাম ইন সিটি করপোরেশন’ শীর্ষক প্রকল্পের অধীনে ২৭ কোটি ২ লাখ ১৯ হাজার টাকায় নগরীর ৫৮ কিলোমিটার দৈর্ঘ্যের মোট ৩০টি রাস্তায় এলইডি লাইট লাগানো হবে। এর মধ্যে দুই কিলোমিটার সোলার এবং ৫৬ কিলোমিটার রাস্তায় নন-সোলার এলইডি লাইট লাগানো হবে। এলইডি লাইট লাগানোর জন্য চীন থেকে আনা সাদা বৈদ্যুতিক পুল স্থাপন করা হচ্ছে।      

সরেজমিন দেখা যায়, ইতিমধ্যে নগরীর অনেক ফুটপাথ ও ড্রেনে খুঁটি বসানো হয়েছে। এর মধ্যে এম এম আলী রোড, চট্টেশ্বরী রোড, বাদশা মিয়া রোড, সার্সন রোড, জামালখান রোড, আগ্রাবাদ বাণিজ্যিক এলাকা, নিউমার্কেট রোডের বিভিন্ন স্থান, নালা ও ফুটপাথের ওপর বৈদ্যুতিক খুঁটি স্থাপন করা হয়েছে। স্থাপিত খুঁটিগুলোর কারণে অনেক জায়গায় পানি প্রবাহে বাধাগ্রস্ত হওয়ার সম্ভাবনা আছে। নালা ড্রেন দিয়ে পানি প্রবাহ বাধাগ্রস্ত হলে সড়ক-ফুটপাথে জলাবদ্ধতা হওয়ার আশঙ্কা আছে বলে অভিযোগ রয়েছে।

আপনার মন্তব্য

up-arrow