Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ২১ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, সোমবার, ২১ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : রবিবার, ৩ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ২ জুলাই, ২০১৬ ২৩:৪০
পবিত্র শবে কদর পালিত
নিজস্ব প্রতিবেদক

ধর্মীয় ভাবগম্ভীর পরিবেশে মহান আল্লাহ তায়ালার দয়া ও করুণা লাভের আশায় রাতভর ইবাদত-বন্দেগি ও রোনাজারির মাধ্যমে পালিত হয়েছে মহিমান্বিত রাত পবিত্র লাইলাতুল কদর বা শবেকদর। পবিত্র কোরআন নাজিলের মাস হিসেবে রমজান যেমন বিশেষ মর্যাদায় ভূষিত, তেমনি কোরআন নাজিলের কারণেই শবেকদর অতি ফজিলত ও তাত্পর্য বহন করে।

তারিখ নিয়ে মতভেদ থাকলেও পবিত্র রমজানের কদরের রাতে লাওহে মাহফুজ থেকে নিম্ন আকাশে মহাগ্রন্থ আল কোরআন অবতীর্ণ হয়। রসুলুল্লাহ (সা.) পুরো রমজান, বিশেষত রমজানের শেষ দশকে লাইলাতুল কদরের অন্বেষায় ব্যাকুল হয়ে উঠতেন। গতকাল এশার আজানের পরপরই জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমসহ মসজিদগুলোতে মুসল্লিদের ভিড় বাড়তে শুরু করে। ছোট-বড় সব বয়সী মানুষ দল বেঁধে সমবেত হন মসজিদে। মসজিদগুলোতে ছিল মুসল্লিদের উপচে পড়া ভিড়। মাগরিবের নামাজের পর রাজধানীসহ সারা দেশে মসজিদে মসজিদে ওয়াজ মাহফিল, মিলাদ ও বিশেষ মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। তারাবির নামাজের পর পবিত্র কোরআন নাজিলের এ বিশেষ রাতে মুসল্লিরা নিজেদের গুনাহ মাফের আশায় নফল ইবাদত, কোরআন তিলাওয়াত, জিকির-আজকারের মধ্যদিয়ে রাতটি অতিবাহিত করেন। বাদ ফজর অনুষ্ঠিত হয় আখেরি মোনাজাত। আখেরি মোনাজাতে দুনিয়া ও আখিরাতের কল্যাণ, ব্যক্তিগত সুখ-শান্তি ও মুসলিম উম্মাহর শান্তি, কল্যাণ, অগ্রগতি কামনা করা হয়।

শবেকদর উপলক্ষে আজ সরকারি ছুটির দিন। তবে তফসিলি ব্যাংকগুলো খোলা থাকবে। ঈদ উপলক্ষে খোলা থাকবে সব মার্কেট ও শপিং সেন্টার। সংবাদপত্র ও অন্যান্য গণমাধ্যমও খোলা থাকবে। ইসলামে শরিয়তে যে কটি দিন ও রাত বিশেষভাবে মহিমান্বিত, তার মধ্যে সর্বাপেক্ষা উত্তম ও ফজিলতপূর্ণ হলো এ শবেকদর। প্রিয় নবী (সা.) বলেছেন, যে ব্যক্তি লাইলাতুল কদরে ইমানের সঙ্গে সওয়াব লাভের আশায় ইবাদত করে, তার পূর্ববর্তী গুনাহসমূহ ক্ষমা করে দেওয়া হয়।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow