Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৭

ঢাকা, শনিবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৭
প্রকাশ : সোমবার, ৪ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৩ জুলাই, ২০১৬ ২৩:৫৪
ঈদের আমেজ নেই তনুর পরিবারে
কুমিল্লা প্রতিনিধি
ঈদের আমেজ নেই তনুর পরিবারে

দুই দিন পরেই পবিত্র ঈদুল ফিতর। সর্বত্র চলছে কেনা-কাটার ধুম।

তবে ঈদের আমেজ নেই কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া কলেজ ছাত্রী নিহত সোহাগী জাহান তনুর পরিবারে। প্রত্যেকবার তনুর পরিবার সেনানিবাসের বাসায় ঈদ পালন করলেও এবার তারা চলে যাবেন গ্রামের বাড়িতে।

গতকাল সন্ধ্যায় তনুর মা আনোয়ারা বেগম এ প্রতিবেদককে বলেন, ‘রোজা কিভাবে থাকছি, কী রান্না করছি, কী খাচ্ছি বলতে পারব না। ওঠতে বসতে শুধু তনুর কথা মনে হয়। ’ ঈদের কেনা-কাটার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘পরিবারের কেউ কিছু কেনেনি। তনুর দুই ভাইয়ের মনও খারাপ। গত ঈদে পরিবারের সবার জন্য কেনা-কাটা তনুই করেছে। তার নিজের, দুই ভাই, বাবা এবং আমার সবার কাপড় তনুই পছন্দ করত। এবার আমার শ্বশুরের জন্য শুধু একটি পাঞ্জাবি কিনেছি।

ঈদ গ্রামের বাড়ি কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার মির্জাপুর গ্রামে করব। সেনানিবাসের বাসায় কোনো প্রতিবেশী এখন ভয়ে আমাদের সঙ্গে মিশতে চায় না। বাইরে গেলে আমাদের সঙ্গে কথা বলে। এখানে আমাদের পাহারা দিয়ে রাখা হচ্ছে। ’ তিনি বলেন, ‘ঈদের দিন তনু নানা ধরনের খাবার তৈরি করত। কেক, সমুচা, হালিম, নুডুলস, মাংসের কাবাব, ডিম পিঠা তার পছন্দের খাবার ছিল। এগুলো দিয়ে আত্মীয়স্বজন ও প্রতিবেশীদের আপ্যায়ন করত। তনুর বাবার পছন্দ কাচ্চি বিরিয়ানি। তনু সেটিও রান্না করত। এখন নামাজের বিছানায় বসে তনুর বাবায় কান্দে, আমিও কান্দি। সিআইডি বলেছে ঈদের পরে তনুর মামলার বিষয়ে আরও গুরুত্ব দিয়ে কাজ শুরু করবে। মেয়েতো হারিয়েছি, দেখি বিচারটা পাই কিনা। ’

up-arrow