Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : রবিবার, ১০ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৯ জুলাই, ২০১৬ ২৩:২৬
ঈদের ছুটিতে সিলেটে টিলা কাটার মচ্ছব
শাহ্ দিদার আলম নবেল, সিলেট

টানা ৯ দিন ঈদের ছুটি। এ সুযোগে সিলেট নগরীর আম্বরখানা ইলেকট্রিক সাপ্লাই এলাকার যুগিটিলা কাটার মহোৎসব চলছে। এক্সেভেটর লাগিয়ে রাত-দিন চলছে টিলা কাটা। পুলিশ ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট গিয়ে টিলা কাটা বন্ধের নির্দেশ দিলেও তা মানছেন না স্বার্থান্বেসীরা। আবদুল আউয়াল শ্রমিকদের পাশাপাশি এক্সেভেটর লাগিয়ে টিলাটি কেটে সমতল করার কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন। জানা যায়, প্রায় ৯০ শতক জায়গা জুড়ে অস্তিত্ব বিরাজমান ছিল যুগিটিলার। স্বার্থান্বেসীরা ধীরে ধীরে টিলাটি কেটে গড়ে তুলেছেন আবাসন। সর্বশেষ ২০ শতক জায়গায় দাঁড়িয়ে থাকা টিলাটিও কেটে সমতল করার কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন আবদুল আউয়াল। টিলাটি নিশ্চিহ্ন করার উদ্যোগ তিনি নিয়েছিলেন ২০০৯ সালে। পরিবেশ অধিদফতরের দুর্নীতিবাজ কর্মকর্তাদের ম্যানেজ করে ড্রেসিংয়ের অনুমতি নিয়ে ওই সময় টিলা কাটা শুরু করেন তিনি। এর বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে রিট করেন পরিবেশ আইনজীবী সমিতি (বেলা)। একপর্যায়ে পরিবেশ অধিদফতরও তাদের ড্রেসিংয়ের অনুমতি বাতিল করে। অনুমতি বাতিলের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে যান আবদুল আউয়াল। আবদুল আউয়ালের দাবি চলতি বছরের ২৪ জানুয়ারি তাকে শর্তসাপেক্ষে টিলা ড্রেসিংয়ের অনুমতি দিয়েছেন আদালত। তবে পরিবেশ অধিদফতর বলছে টিলা কাটার পক্ষে আদালতের কোনো অনুমতিপত্র তারা পাননি, আউয়ালও তাদের কোনো কাগজ দেখাতে পারেননি।

সরেজমিন গিয়ে দেখা গেছে— দিনের বেলা এক্সেভেটর লাগিয়ে দেদারছে চলছে টিলা কাটা। প্রায় ৬০ ফুট উচ্চতার টিলাটির উপর থেকে প্রায় ২০ ফুটের মাটি কেটে ফেলা হচ্ছে। গার্ড ওয়াল না দিয়ে টিলা কাটার ফলে আশপাশের বসতিও রয়েছে ঝুঁকির মধ্যে।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow