Bangladesh Pratidin

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ অক্টোবর, ২০১৭

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ অক্টোবর, ২০১৭
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ২১ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ২০ জুলাই, ২০১৬ ২৩:৪৪
জঙ্গিবাদ ইস্যুতে বাংলাদেশের পাশে থাকবে মালয়েশিয়া
নিজস্ব প্রতিবেদক
জঙ্গিবাদ ইস্যুতে বাংলাদেশের পাশে থাকবে মালয়েশিয়া
মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী নাজিব রাজাকের সঙ্গে গতকাল তার কার্যালয়ে সাক্ষাৎ করেন সফররত বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ —বাংলাদেশ প্রতিদিন

জঙ্গিবাদ ইস্যুতে বাংলাদেশের পাশে থাকার আশ্বাস দিয়েছেন মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী নাজিব রাজাক। গতকাল বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে তার কার্যালয়ে সৌজন্য সাক্ষাৎকালে এ আশ্বাস দেন।

এ সময় তারা পারস্পরিক স্বার্থসংশ্লিষ্ট বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করেন।

বাংলাদেশ থেকে আরও শ্রমিক নেওয়ার জন্য অনুরোধ জানিয়ে নসরুল হামিদ মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রীকে বলেন, মালয়েশিয়া বাংলাদেশে ১১ বিলিয়ন রিঙ্গিত বিভিন্ন প্রকল্পে বিনিয়োগ করেছে। বাংলাদেশে আরও বিনিয়োগের সুযোগ রয়েছে মালয়েশিয়ার। বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে সরকারি ও বেসরকারি বিনিয়োগ উৎসাহিত করতে তার সহযোগিতা কামনা করেন। বাংলাদেশের টেক্সটাইল পণ্য, ওষুধ, সবজি ও সামুদ্রিক মাছ আমদানির জন্য তাকে অনুরোধ জানান। জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে বাংলাদেশের অবস্থান মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী দৃঢ়ভাবে সমর্থন এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রশংসা করেন। তিনি অবকাঠামো উন্নয়ন ও জ্বালানি খাতে বিনিয়োগে আগ্রহ প্রকাশ করেন। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশের যে উন্নয়ন হয়েছে তার ভূয়সী প্রশংসা করেন।

তিনি এ সময় বাংলাদেশের শ্রমিকদের প্রশংসা করে বলেন, সেবা খাতে আরও শ্রমিক দ্রুত নেওয়া হবে। মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কথা স্মরণ করে বলেন, তার বাবার সঙ্গে বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ঠতা ছিল। মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশের বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রীকে প্রয়োজনীয় সহায়তার আশ্বাস দেন। তিনি বলেন, ভ্রাতৃপ্রতিম দুই দেশের সম্পর্ক উত্তরোত্তর বৃদ্ধির প্রক্রিয়া অব্যাহত রাখা হবে। তিনি সুবিধাজনক সময়ে বাংলাদেশ সফর করবেন বলে জানান।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে বিদ্যুৎ সচিব মনোয়ার ইসলাম, পিডিবি চেয়ারম্যান মো. শামসুল হাসান মিয়া ও মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মো. শহিদুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow