Bangladesh Pratidin

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২৩:১৯
কারাগারকেই নিরাপদ ভাবেন শীর্ষ সন্ত্রাসীরা
বন্দুকযুদ্ধে নিহত হওয়ার আশঙ্কা
শাহজাদা মিয়া আজাদ, রংপুর

কারাগারে থাকাই নিরাপদ মনে করছে রংপুরে পুলিশ ও র‌্যাবের মোস্ট ওয়ান্টেড তালিকায় থাকা শীর্ষ সন্ত্রাসীরা। জামিনে বেরিয়ে আসার পর আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর বন্দুকযুদ্ধের শিকার হতে পারেন এমন আশঙ্কায় শীর্ষ সন্ত্রাসীরা জামিন না করার পরামর্শ দিচ্ছে স্বজনদের।

মোস্ট ওয়ান্টেড ৩৪ সন্ত্রাসীর মধ্যে ২৫ জনই কারাগারে রয়েছেন বলে পুলিশ জানিয়েছে। অন্যরা বাইরে থাকলেও আত্মগোপনে রয়েছেন। এ সন্ত্রাসীরা না থাকায় নগরীতে অপরাধ প্রবণতা নেই। স্বস্তিতে দিন কাটছে নগরবাসীর।

জানতে চাইলে কোতোয়ালি থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আজিজুল ইসলাম বলেন, রংপুরের বেশিরভাগ শীর্ষ সন্ত্রাসী এখন কারাগারে। তারা কারাগারকেই নিরাপদ ভেবে জামিনও নিচ্ছেন না। যারা বাইরে আছে তারা পুলিশ ও র‌্যাবের হাতে গ্রেফতার এড়াতে এলাকা ছেড়েছেন। তবে তাদের ধরতে পুলিশের বিশেষ টিম তত্পর রয়েছে। তাদের অবস্থান সন্ধানে কাজ করছে গোয়েন্দা সদস্যরা। সন্ত্রাসীরা আর কোনোভাবেই সক্রিয় হতে পারবেন না।  

পুলিশ ও র‌্যাব সূত্রে জানা গেছে, নগরীর অপরাধ জগত নিয়ন্ত্রণ করে ৩৪ জন মোস্ট ওয়ান্টেড সন্ত্রাসী। এদের মধ্যে ১০ জনই কিলার। তাদের সবার কাছে রয়েছে অবৈধ আগ্নেয়াস্ত্র। একেক জনের নামে হত্যা, সন্ত্রাসী, ছিনতাই ও চাঁদাবাজিসহ বিভিন্ন অপরাধে ১০-২০টি করে মামলা রয়েছে। এরা নগরবাসীর আতঙ্ক ও অস্বস্তির কারণ। এদের মধ্যে কয়েদি মিলন, মুরগি মিলন, বগা মিলন, পিচ্চি আপেল, ব্ল্যাক রুবেল, মেরিল সুমন, ভরসা কাজল, কাটা জাহাঙ্গীর, জয়নাল মির্জা, ঘাবরি পলাশ, কানা আবুল, শামীম লালাজ ও ঘুঘুসহ ২৫ শীর্ষ সন্ত্রাসী কারাগারে রয়েছেন।  

এই পাতার আরো খবর
up-arrow