Bangladesh Pratidin

ঢাকা, রবিবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১৮ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৭ অক্টোবর, ২০১৬ ২২:৩৯
৫৭ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ২৪টি ভবন অতি ঝুঁকিপূর্ণ!
আতঙ্কে ১৫ হাজার ছাত্র-ছাত্রী
রেজা মুজাম্মেল, চট্টগ্রাম

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন (চসিক) পরিচালিত জামালখান কুসুমকুমারি সিটি কর্পোরেশন বালিকা উচ্চবিদ্যালয়ের নিচতলার বারান্দার ছাদের পলেস্তারা খসে পড়ে, বের হয়ে যায় লোহার রড। একইভাবে ১৯৬০ সালে নির্মিত গুল-এ-জার বেগম সিটি কর্পোরেশন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের তিনতলা ভবনের নিচতলার শ্রেণিকক্ষের ছাদের পলেস্তারা খসে পড়ে।

তাছাড়া বলুয়ারদীঘির পাড় এলাকায় ১৯৬৮ সালে নির্মিত লামাবাজার এএএস সিটি কর্পোরেশন বালিকা উচ্চবিদ্যালয়ের চারতলা ভবনের প্রতি তলার সিঁড়িকক্ষের ছাদের পলেসত্মারা খসে বেরিয়ে গেছে লোহার রড। কখন ছাদ থেকে  পলেসত্মারা খসে পড়বে- এ আতঙ্কে থাকে শিক্ষার্থীরা।     

এভাবে চসিক পরিচালিত ৫৭টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের মোট ৮৪টি ভবনের মধ্যে ২৪টিই (লাল চিহ্নিত) অতি ঝুঁকিপূর্ণ। চসিকের প্রকৌশল বিভাগের উদ্যোগে পরিচালিত ‘র‌্যাপিড ভিজ্যুয়াল স্ক্যানিং’ শীর্ষক এক জরিপে এই তথ্য পাওয়া যায়। জরিপে ১৮টি ভবনকে ‘অ্যাম্বার’ (ঝুঁকিপূর্ণ), ১৮টি ভবনকে ‘হলুদ’ (আপাতদৃষ্টিতে ঠিক আছে) এবং ২৪টি ভবনকে ‘সবুজ’ সংকেত (কোনো সমস্যা নেই) দেওয়া হয়। প্রকৌশল-পরামর্শক প্রতিষ্ঠান চসিকের ৮৪টি ভবনের পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে এ প্রতিবেদন জমা দেয়। এসব ভবনের মধ্যে ৮০ বছরের পুরোনো ভবনও আছে। এসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে প্রায় ১৫ হাজার শিড়্গার্থী লেখাপড়া করছে।           

এই পাতার আরো খবর
up-arrow