Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৭

ঢাকা, শনিবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৭
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১৪ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ১৪ মার্চ, ২০১৭ ০২:১৭
ভেজাল খাবার পরিবেশন করায় দুই প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা
নিজস্ব প্রতিবেদক

খাবার তৈরিতে ভেজাল ও নিম্নমানের দ্রব্য ব্যবহার করায় খান চানাচুর ও সালাম কিচেন নামের দুটি প্রতিষ্ঠানকে ১৬ লাখ টাকা জরিমানা করেছে নিরাপদ খাদ্য আদালত-৩। গতকাল বিশুদ্ধ খাদ্য আদালত-৩ এ জরিমানা করেন।

ডিএনসিসির স্পেশাল মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মাহবুব সোবহানী বলেন, ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের নিরাপদ খাদ্য পরিদর্শক আবদুল খালেক মজুমদার বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছিলেন। মামলায় ভেজাল তেল ও নিম্নমানের সয়াবিন তেল ব্যবহার করে চানাচুর উৎপাদন এবং বাজারজাত করায় খান চানাচুরের স্বত্বাধিকারী আবদুর রব খানকে ৬ লাখ টাকা এবং ভেজাল খাবার পরিবেশন করায় সালাম কিচেনের মালিক আসাদুজ্জামানকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। গত বছর ৩১ আগস্ট প্রতিষ্ঠানগুলোর উৎপাদিত পণ্যে ভেজালের উপস্থিতি পাওয়া গেলে ডিএনসিসির নিরাপদ খাদ্য পরিদর্শক আবদুল খালেক মজুমদার প্রতিষ্ঠানগুলোকে নোটিস পাঠান। তারা নোটিসের সদুত্তর না দেওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়। গাজী টায়ারকে তিন লাখ টাকা জরিমানা : লাইসেন্সের শর্ত ভঙ্গের দায়ে গাজী টায়ারকে তিন লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। একইসঙ্গে প্রতিষ্ঠানটির ম্যানেজার মাসরুর হোসেনকে ৬ মাসের কারাদণ্ড, অনাদায়ে ১৫ দিনের জেল দেওয়া হয়েছে। জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তানজিলা কবীরের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত এ দণ্ড দেয়। আদালত গতকাল ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) পোস্তায় অবস্থিত গাজী টায়ার, চকবাজার ও শহীদনগর এলাকায় অভিযান চালানো হয়। এ সময় আরও ৩টি প্রতিষ্ঠানকে ৭০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এছাড়া  ডিএসসিসির অঞ্চল-৩ এর নির্বাহী কর্মকর্তা এসএম আনছারুজ্জামানের নেতৃত্বে শহীদ নগর এলাকায় পরিচালিত অভিযানে এম রহমান প্লাস্টিক কারখানাকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা ও মালামাল জব্দ করা হয়।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow