Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : বুধবার, ২১ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা প্রিন্ট ভার্সন আপলোড : ২১ নভেম্বর, ২০১৮ ০২:৫৮
উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে চান শামীম
শরীয়তপুর প্রতিনিধি
উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে চান শামীম

আগামী সংসদ নির্বাচনে জয়লাভ করে বর্তমান সরকারের উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে চান এনামুল হক শামীম। স্থানীয়রা বলেন, শরীয়তপুর-২ আসনে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক, তরম্নণ রাজনীতিক এ কে এম এনামুল হক শামীমের বিকল্প নেই। শামীমই একমাত্র প্রার্থী যিনি তৃণমূল পর্যায়ে জনগণের আস্থাভাজন। তিনি নদীভাঙনকবলিত এলাকার মানুষের মাঝে শান্ত্মি ফিরিয়ে এনেছেন। ভাঙনকবলিত ৬ হাজার মানুষের মাঝে কয়েকবার ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করেছেন। নিয়মিত খোঁজখবর নিচ্ছেন। এবারের নির্বাচনে পদ্মার ভাঙন ভোটের      রাজনীতিতে ভূমিকা রাখবে। তাই এবার প্রধানমন্ত্রীর আস্থাভাজন এনামুল হক শামীমকে এমপি হিসেবে দেখতে চায় এলাকাবাসী। এ আসনে তিনি যত দিন নৌকার হাল ধরে রাখবেন তত দিন এখানে নৌকার বিজয় সুনিশ্চিত। দলীয় নেতা-কর্মী ছাড়াও তৃণমূল লোকজনের সঙ্গে কথা বলে এসব তথ্য জানা গেছে। এলাকাবাসী জানায়, এলাকার রাসত্মাঘাট, বিদ্যুৎ, স্কুল-কলেজ, মসজিদ, মাদ্রাসাসহ ব্যাপক উন্নয়নমূলক কাজ করেছেন শামীম। এ ছাড়া নদীভাঙনকবলিত মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে আওয়ামী লীগকে শক্তিশালী করেছেন শামীম। তিনি বঙ্গবন্ধুর সৈনিক হিসেবে শেখ হাসিনার আদর্শ বুকে লালন করে এলাকার উন্নয়ন ও জনগণের সেবা করে যাচ্ছেন। নির্বাচনী এলাকায় এসে দলীয় নেতা-কর্মীদের সঙ্গে নিয়ে গণসংযোগ ও প্রধানমন্ত্রীর ডিজিটাল দেশ গড়া এবং নৌকার লিফলেট বিতরণ করেছেন। বিভিন্ন কর্মকা্ল চালিয়ে যাচ্ছেন তিনি। নড়িয়া পৌরসভার মেয়র শহিদুল ইসলাম বাবু রাঢ়ি, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান জাকির হোসেন, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আবদুল ওহাব বেপারী, নওপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সোহেল মুন্সী, কেদারপুর ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান ইমাম হোসেন দেওয়ান, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান নাজমা, জেলা পরিষদ সদস্য আলী কাজী ও আবদুল কাইয়ুম পাইক, মুক্তাকার চর ইউপি চেয়ারম্যান শাহ আলম চকিদার, অ্যাডভোকেট আবদুল আউয়াল, রব শিকদার, জেলা আওয়ামী লীগ নেতা ত্বকি হাওলাদার, সখীপুর উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মানিক সরকারসহ আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ উপস্থিত থেকে লিফলেট, উঠান বৈঠক চালিয়ে যাচ্ছেন শামীমের পক্ষে।

নড়িয়ায় দলীয় কর্মকা্লসহ বিভিন্ন সামাজিক কর্মকা্লে তার ভূমিকা রয়েছে। সম্প্রতি নদীভাঙনকবলিত এলাকায় রেখেছেন বিশেষ ভূমিকা। ভাঙনকবলিত এলাকায় ঘরহারা পরিবারের মাঝে আওয়ামী লীগ ও শামীমের মায়ের নামে করা বেগম ফজয়তুল নেছা ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে ৬ হাজার পরিবারের মাঝে আর্থিক সহযোগিতা প্রদান ও ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে। ভাঙন রোধে তীররক্ষা বাঁধ প্রকল্পেও তার রয়েছে অগ্রণী ভূমিকা। তার ভাবনায় শুধুই নড়িয়া-সখীপুর এলাকার উন্নয়ন।

 

 

 

এই পাতার আরো খবর
up-arrow