Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২৩:৪০
থানা কম্পাউন্ডে আ.লীগের দুই গ্রুপে উত্তেজনা, গুলি
বরগুনা প্রতিনিধি

বরগুনার আমতলী থানা কম্পাউন্ডে শালিস বৈঠকে আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের উত্তেজনা দেখা দেয়। এ সময় ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও তিন রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছোড়া হয়েছে।

থানা কম্পাউন্ডে গুলির ঘটনা ঘটলেও এর দায় নিচ্ছে না পুলিশ বা দুই গ্রুপের কেউ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, স্থানীয় একটি ঝামেলা মীমাংসার জন্য মঙ্গলবার রাতে আমতলী থানা কম্পাউন্ডের মধ্যে শালিস বসে। শালিসের একপর্যায়ে আওয়ামী লীগ সমর্থক উপজেলা চেয়ারম্যান ও মেয়রের লোকজনের মধ্যে বাকবিতণ্ডা ও ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া হয়। এ সময় তাদের মধ্য থেকে তিন রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়লে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। পরে পুলিশ লাঠিচার্জ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

মেয়র মতিয়ার রহমান বলেন, ‘শালিস বৈঠককে কেন্দ্র করে একটু উত্তেজনা হয়েছিল। তা মীমাংসা হয়ে গেছে। ’ তিনি গুলি ছোড়ার বিষয়টি স্বীকার করেছেন। আমতলী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি জিএম দেলওয়ার হোসেন বলেন, একটু ঝামেলা হলেও পরে দুই গ্রুপকে থানায় বসে মিলিয়ে দেওয়া হয়েছে।

আমতলী থানার ওসি জানান, শালিস বৈঠকে দুই পক্ষের কথা কাটাকাটি হয়। এ সময় তিনি থানা গেটের বাইরে গেলে দুই রাউন্ড গুলির শব্দ শোনেন। তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow