Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১১ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১০ অক্টোবর, ২০১৬ ২৩:৪৪
কলেজ ছাত্রীর ওপর হামলা ঘটনায় এবার ট্রাইব্যুনালে মামলা
লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি

লক্ষ্মীপুরে কলেজ ছাত্রীর ওপর হামলার ঘটনায় এবার নারী ও শিশু নির্যাতন ট্রাইব্যুনালে মামলা হয়েছে। সদর থানার মামলায় অসন্তুষ্টি প্রকাশ করে গতকাল ভিকটিম বাদী হয়ে বিএমএ জেলা সভাপতি ডাক্তার আশফাকুর রহমানকে প্রধান আসামি করে এ মামলা করেন।

আসামি করা হয়েছে অজ্ঞাতনামা আরও তিনজনকে। বিচারক ড. এ কে এম আবুল কাশেম মামলা আমলে নিয়ে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোশারফ হোসেনকে ঘটনা তদন্তের নির্দেশ দেন।

আদালত সূত্রে জানা যায়, চাকরি সুবাধে ওই কলেজ ছাত্রীকে ডাক্তার আশফাকুর রহমান মামুন পরিচালিত লক্ষ্মীপুর মা ও শিশু কল্যাণ কেন্দ্রে যোগদান করতে হয়। যোগদানের পর তার (মামুনের) চেয়ার টেবিলে অফিস করার জন্য বলে। একপর্যায়ে তার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক করার প্রস্তাব দেন মামুন। রাজি না হলে বিয়ের প্রস্তাব দেন। এতেও অস্বীকৃতি জানালে চাকরি করতে না দেওয়ার হুমকি দেয়। পরে বিয়ের আশ্বাসে ঢাকায় একটি হোটেলে নিয়ে ছাত্রীকে ধর্ষণ করেন মামুন। পরে গত বছরের ২৬ ফেব্রুয়ারি নিয়ে যান সিলেটে। সেখানে তাকে ধর্ষণ করা হয়। ২৭ ফেব্রুয়ারি ৩০ লাখ টাকা দেনমোহর ধার্যক্রমে তাদের ‘সাজানো’ বিয়ে হয়। এরপর লক্ষ্মীপুর ফিরে মামুন তিন মাস ওই ছাত্রীকে ধর্ষণ করেন বলে মামলায় উল্লেখ করা হয়। বিষয়টি জানাজানি হলে চাকরি ছেড়ে দিয়ে ঢাকায় চলে যেতে বলে ছাত্রীকে। একপর্যায়ে কাবিননামা চাইলে বিয়ে অস্বীকার করেন মামুন। সবশেষ শনিবার সন্ধ্যায় লক্ষ্মীপুরের শাখারীপাড়াস্থ ছোট ব্রিজের কাছে মামুনসহ অজ্ঞাত ২-৩ জন তার ওপর হামলা চালায়। এ ঘটনায় পরদিন সদর থানায় মামলা করা হয়।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow