Bangladesh Pratidin

ঢাকা, রবিবার, ১৭ ডিসেম্বর, ২০১৭

ঢাকা, রবিবার, ১৭ ডিসেম্বর, ২০১৭
প্রকাশ : বুধবার, ১৯ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৮ অক্টোবর, ২০১৬ ২৩:০৯
কাজ দেওয়ার কথা বলে লঞ্চে তুলে কিশোরীকে ধর্ষণ
মোরেলগঞ্জ প্রতিনিধি

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে ১৩ বছরের কিশোরীকে লঞ্চে তুলে দফায় দফায় ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনার তিন দিন পর এ ব্যাপারে মামলা হয়েছে। কিশোরীর ভাই সোমবার রাতে বারইখালী গ্রামের গনি মোল্লার ছেলে বাবুকে আসামি করে মামলাটি করেন। পুলিশ ওই রাতেই কিশোরীকে চিকিৎসার জন্য বাগেরহাট সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছে। ঘটনাটি ঘটে গত শুক্রবার মোরেলগঞ্জ থেকে ঢাকাগামী লঞ্চ ‘বাঙ্গালী’র একটি কেবিনে। ধর্ষক বাবু মোল্লা পলাতক রয়েছেন। কিশোরীর স্বীকারোক্তি ও মামলার বরাত দিয়ে মোরেলগঞ্জ থানার ওসি রাশেদুল আলম জানান, মোরেলগঞ্জ পৌর সদরের বারইখালী গ্রামের বাবু মোল্লা (২২) প্রতিবেশী কিশোরীকে ঢাকায় তার বোনের বাসায় ঝির কাজ দেওয়ার কথা বলে শুক্রবার লঞ্চে করে রওনা হন। লঞ্চে ওঠার কিছুক্ষণ পর কেবিনে মেয়েটিকে ঝালমুড়ি ও জুসের সঙ্গে ঘুমের ওষুধ খাইয়ে ধর্ষণ করে। দুই দিন পর বাবু মেয়েটিকে মোরেলগঞ্জে তার বাবার বাসার সামনে রেখে পালিয়ে যায়। স্বজনরা জানান, দফায় দফায় ধর্ষণের কারণে মেয়েটি স্বাভাবিকভাবে হাঁটাচলা করতে পারছে না।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow