Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৭

ঢাকা, সোমবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৭
প্রকাশ : শনিবার, ৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:১৫
টাকার বিনিময়ে ভিজিডি কার্ড
ফরিদপুর প্রতিনিধি

ফরিদপুরের বোয়ালমারী উপজেলার শেখর ইউনিয়নে টাকার বিনিময়ে ভিজিডি (ভালনারেবল গ্রুপ ডেভেলপমেন্ট) কার্ড বিতরণের অভিযোগ উঠেছে ইউপি সচিব নির্মাণ বিশ্বাসের বিরুদ্ধে। শুধু তাই নয়, টাকা ছাড়া নাকি কোনো কাজই করেন না তিনি। নির্মাণ বিশ্বাসের এ সব অপকর্ম খতিয়ে দেখে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করেছেন স্থানীয়রা। অভিযুক্ত ইউপি সচিব জানান, পরিষদের তেমন কোনো আয় নেই। ফটোকপি, ছবিসহ বিভিন্ন কাজে টাকা লাগে। ফলে যে যা পেরেছে তাই দিয়েছে। জোর করে কারো কাছ থেকে টাকা নেওয়া হয়নি। জানা যায়, মহিলা অধিদপ্তর পরিচালিত ২০১৭-১৮ অর্থবছরের শেখর ইউনিয়নে ২৪৯ নারীকে ভিজিডি কার্ড দেওয়া হয়। কার্ডধারীদের প্রতিমাসে ৩০ কেজি করে চাল দেওয়ার কথা। গত সোমবার ইউনিয়ন পরিষদ থেকে বিতরণ করা হয় কার্ডগুলো। কার্ডধারী কয়েক নারী অভিযোগ করেন, তারা কার্ড আনতে গিয়ে অনেক হয়রানির শিকার হয়েছেন।

যারা ইউপি সচিবের চাহিদানুযায়ী টাকা দিতে পেরেছেন শুধু তারাই কার্ড পেয়েছেন। নাম প্রকাশ না করার শর্তে কয়েকজন জানান, নানা বাহানায় সচিব কার্ডধারীদের কাছ থেকে ১০০ থেকে ২০০ টাকা করে নিয়েছেন। সাবধান করে দিয়েছেন চেয়ারম্যান কিংবা অন্য কাউকে টাকা নেওয়ার বিষয়টি না জানাতে। উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা ইলা রানী কুণ্ডু বলেন, কার্ড বিতরণের নামে কোনো টাকা নেওয়া যাবে না। কেউ টাকা নিয়ে থাকলে অন্যায় করেছেন। এ বিষয়ে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। শেখর ইউপি চেয়ারম্যান ইস্রাফিল হোসেন জানান, সচিব টাকা নিয়েছেন এমন কথা কেউ তাকে বলেনি। তারপরও বিষয়টি খোঁজ নিয়ে দেখা হবে।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow