Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৩ নভেম্বর, ২০১৭

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৩ নভেম্বর, ২০১৭
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০১:৪১
পদ্মায় ৬৩ গরুসহ ট্রলার লুট
ফরিদপুর প্রতিনিধি

ফরিদপুরের চরভদ্রাসনের সদর ইউনিয়নের হাজিডাঙ্গী গ্রামের ভাঙ্গার মাথার নিকটবর্তী পদ্মা নদীতে ৬৩টি গরুসহ দুটি ট্রলার লুট করে নিয়েছে ডাকাতরা। তারা গরুর মহাজন ও মাঝিদের মারধর করে।

এ ঘটনায় চরভদ্রাসন থানায় মামলা হয়েছে। থানার ওসি জানান, ডাকাতদের গ্রেফতার ও গরু-ট্রলার উদ্ধারে পুলিশের একাধিক টিম কাজ করছে। ট্রলারের মাঝি আকবর হোসেন ও রহম আলী জানান, মঙ্গলবার ফরিদপুরের টেপাখোলা গরুর হাট থেকে ছয়জন বেপারি ৬৩টি গরু কেনেন। জেলা শহরের সিঅ্যান্ডবি ঘাট থেকে ট্রলারে গরু বোঝাই করে কুমিল্লার উদ্দেশে রওনা হন। রাত আড়াইটার দিকে হাজিডাঙ্গীর কাছাকছি এলে বড় দুটি স্পিডবোট নিয়ে প্রায় ৩০-৪০ জন ডাকাত ট্রলারে আক্রমণ করে। তারা ট্রলারের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে সবাইকে হাত ও চোখ বেঁধে পিয়াজখালীর আগে এক চরে ফেলে ট্রলারসহ গরু নিয়ে চলে যায়। ট্রলারের মালিক বাচ্চু মোল্যা জানান, ‘আমার একমাত্র আয়ের মাধ্যম ট্রলারটি নিয়ে যাওয়ায় নিঃস্ব হয়ে গেলাম। ’ তিনি ট্রলার উদ্ধারের জন্য প্রশাসনের সহযোগিতা কামনা করেন। গরুর এক মহাজন জানান, ‘গরু নিয়ে কুমিল্লা যাওয়ার পথে ডাকাতের আক্রমণের শিকার হই। ডাকাতরা ট্রলারসহ গরু ও গরুর মহাজনের কাছ থেকে নগদ প্রায় সাড়ে ৩ লাখ টাকা নিয়ে যায়। ৬৩টি গরুর মূল্য প্রায় ৯০ লাখ টাকা হবে। ’ টেপাখোলা গরুর হাটের ইজারাদার প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা মাহবুবুল ইসলাম নদীপথে নৌপুলিশের টহল বাড়ানোর কথা বলেন।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow