Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : ১০ জুন, ২০১৬ ২০:১৩
ধামরাইয়ে কলেজছাত্রীকে ধর্ষণ
অনলাইন ডেস্ক
ধামরাইয়ে কলেজছাত্রীকে ধর্ষণ

ধামরাইয়ের কুশুরার নবযুগ বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের রাষ্ট্র বিজ্ঞান বিভাগের অনার্স প্রথম বর্ষের এক শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে মনিরুজ্জামান চপল (৩০) নামে এক যুবকের বিরুদ্ধে।

ওই শিক্ষার্থীই অভিযোগ তুলেছেন, বৃহস্পতিবার গভীর রাতে তার বাড়িতে গিয়ে চপল তাকে ধর্ষণ করেছেন। শুক্রবার দুপুরে  শিক্ষার্থী নিজেই বাদি হয়ে ধামরাই থানায় একটি ধর্ষণের অভিযোগ দায়ের করেছেন।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলা শিয়ালকুল গ্রামের এক কৃষকের মেয়ে ওই শিক্ষার্থী। বৃহস্পতিবার গভীর রাতে প্রাকৃতিক ডাকে তিনি বাইরে বের হন। এ সময় ঘরের পেছনে ওঁৎ পেতে থাকা একই গ্রামের মো. আবুল ডাক্তারের ছেলে চপল তার হাত-পা মুখ গামছা দিয়ে বেঁধে ধর্ষণ করেন তাকে।

শুক্রবার সকালে ওই শিক্ষার্থীর বাবা ধর্ষককের বাবা ও এলাকার মাতবরদের ধর্ষণের বিষয়ে জানান। এ সময় চপল তার বন্ধুদের নিয়ে শিক্ষার্থীর বাবাকে ব্যাপক মারধর করেন। গুরুতর আহতাবস্থায় তাকে এলাকাবাসী উদ্ধার করে কালামপুর জনতা ক্লিনিকে ভর্তি করেন।

অভিযোগে আরও জানা যায়, ওই শিক্ষার্থীর বাবাকে মারধরের পর তার মা এবং পরিবারের অন্য সদস্যদেরও আটকে রাখে চপলের লোকজন। পরে সূয়াপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সোরহাব হোসেনের সহযোগিতায় স্থানীয় সাংবাদিকরা শিক্ষার্থীকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন। এরপর সেই শিক্ষার্থী নিজেই বাদী হয়ে থানায় ধর্ষণের অভিযোগটি দায়ের করেন।

এ বিষয়ে চেয়ারম্যান সোরহাব হোসেন বলেন, ধর্ষিতার পরিবারকে আটকে রাখা হয়েছে খবর শুনে ঘটনাস্থলে গিয়ে তাদের উদ্ধার করা হয়।

ধামরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রিজাউল হক দিপু বলেন, অভিযোগ পাওয়া গেছে। বিষয়টি আমরা খতিয়ে দেখছি।

বিডি-প্রতিদিন/ ১০ জুন ১৬/ সালাহ উদ্দীন

 

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow