Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ২১ জানুয়ারি, ২০১৭

প্রকাশ : ২৪ জুলাই, ২০১৬ ১৮:৫৩
আপডেট :
ফের মলদ্বারে বাতাস ঢুকিয়ে শিশু হত্যার অভিযোগ
অনলাইন ডেস্ক
ফের মলদ্বারে বাতাস ঢুকিয়ে শিশু হত্যার অভিযোগ

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের যাত্রমুড়া এলাকায় একটি তুলা কারখানায় পায়ুপথে বাতাস ঢুকিয়ে সাগর বর্মণ (১০) নামে এক শিশু শ্রমিককে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।  

রবিবার বিকেলে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শিশুটি মারা গেছে।

খুলনায় মলদ্বার দিয়ে বাতাস ঢুকিয়ে শিশু রাকিবকে হত্যার এক বছরের মধ্যে এ ঘটনা ঘটল।

জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. জাকারিয়া জানান, নিহত সাগর বর্মণ (১০) ওই কারখানায় শ্রমিকের কাজ করত।  দুপুর ২টার দিকে কারখানার অন্য শ্রমিকরা মিলের একটি পাম্প থেকে সাগরের মলদ্বার দিয়ে বাতাস দিলে সে অসুস্থ হয়ে পড়ে।  গুরুতর অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হলে বিকাল ৪টার দিকে সেখানে তার মৃত্যু হয়।

ঢামেক হাসপাতালে সাগরের বাবা রতন বর্মণ সাংবাদিকদের জানান, অন্যদিনের মতো রবিবার সকালে কারখানায় কাজে যায় সাগর। এ সময় তারই এক সহকর্মী ময়লা পরিষ্কার করার যন্ত্রের মাধ্যমে সাগরের পায়ুপথ দিয়ে বাতাস দেয়। সঙ্গে সঙ্গে সে অসুস্থ হয়ে পড়ে। পরে তাকে উদ্ধার করে স্থানীয় একটি ক্লিনিকে নেওয়া হয়। পরে তাকে ঢামেক হাসপাতালে আনা হয়। গুরুতর অসুস্থ হওয়ায় কে হাওয়া দিয়েছে তা জানাতে পারেনি সাগর।  সাগর সাত মাস ধরে ওই মিলে শ্রমিকের কাজ করছিল।
 
রতন বর্মণ আরও জানান, তার স্ত্রী লাবণ্য বর্মণও একই কারখানায় কাজ করেন। ৩ হাজার ১০০ টাকা মাসিক বেতনে ৭ মাস আগে সাগর এখানে কাজে যোগ দেয়। ৩ ভাইয়ের সবার ছোট সে। তাদের গ্রামের বাড়ি নেত্রকোনা জেলায়।
 
ছেলে হত্যার সুষ্ঠু বিচার দাবি করেছেন সাগরের বাবা রতন বর্মণ।

গত বছরের ৪ অাগস্ট খুলনা নগরীর টুটপাড়া এলাকায় একটি মোটর গ্যারেজে মলদ্বারে পাইপের মাধ্যমে হাওয়া ঢুকিয়ে মো. রাকিব হাওলাদারকে হত্যা করা হয়। ওই ঘটনায় দুই জনের ফাঁসির রায় হয়েছে।

বিডি-প্রতিদিন/এস আহমেদ

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow