Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২০:৩৪
বাগেরহাটে যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে হত্যা, আটক ১
বাগেরহাট প্রতিনিধি:
বাগেরহাটে যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে হত্যা, আটক ১

বাগেরহাটে যৌতুকের দাবিতে আজমিরা আক্তার জুই (২২) নামের এক গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে স্বামীর পরিবারের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় পুলিশ নিহতের শশুরকে আটক করে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে। সোমবার জেলার কচুয়া উপজেলার চন্দ্রপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত আজমিরা আক্তার জুই কচুয়া উপজেলার গজালিয়া গ্রামের আজমল শিকদারের মেয়ে।

নিহতের বাবা আজমল সিকদার সাংবাদিকদের জানান, বছর দেড়েক আগে তার মেয়ে আজমিরা আক্তার জুইয়ের বিয়ে হয় কচুয়া উপজেলার চন্দ্রপাড়া গ্রামের মোসলেম তালুকদারের ছেলে নাজমুল তালুকদারের সাথে। বিয়ের সময় মেয়ে ও জামাইকে স্বর্ণালংকার দেওয়া হয়েছিল। বিয়ের মাত্র ৬ মাসের মাথায় জামাই নাজমুল তালুকদার বিদেশ যাওয়ার কথা বলে ৩ লাখ টাকা দাবি করে। মেয়ের সুখ-শান্তির কথা চিন্তা করে বিভিন্ন এনজিও থেকে টাকা তুলে ও বাড়ির হাঁস-মুরগী, ছাগল-গরু বিক্রি করে এক লাখ টাকা দেওয়া হয়। এর পরও বাকি টাকার জন্য প্রায়ই নির্যাতন চলতে থাকে। এক পর্যায়ে জামাই নাজমুল তালুকদার বিদেশ যাওয়ার কথা বলে ঢাকায় গিয়ে একটি কোম্পানিতে চাকরি শুরু করে। সেখান থেকে সে মোবাইলে এবং তার পিতা-মাতা সরাসরি টাকার জন্য চাপ দিতে থাকে।

গত রবিবার মেয়ে ও তার পরিবারের লোকদের ঈদের দাওয়াত করতে যান আজমল ও রেহানা। দাওয়াত করে ফেরার পর ওই দিন রাত ১০টায় মোবাইলে জুই জানায় টাকার জন্য তার উপর নির্যাতন করা হচ্ছে। পরের দিন সকালে লোকমুখে খবর শুনে তারা বাগেরহাট সদর হাসপাতালে এসে মেয়ের লাশ দেখতে পান। এসময় সদর হাসপাতালে লাশ রেখে স্বামীর পরিবারের সবাই পালিয়ে যায়।

পরে চন্দ্রপাড়া গ্রাম থেকে এলাকাবাসী নাজমুলের বাবা মোসলেম তালুকদারকে আটক করে কচুয়া থানায় সোপর্দ করে।

কচুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কবিরুল ইসলাম বলেন, এ ঘটনায় গৃহবধূর শশুর মোসলেম তালুকদারকে আটক করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

বিডি-প্রতিদিন/এস আহমেদ

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow