Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শুক্রবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৪:৩৮
রাঙামাটিতে উপজেলা চেয়ারম্যানসহ ৪ আসামি রিমান্ডে
ফাতেমা জান্নাত মুমু, রাঙামাটি:
রাঙামাটিতে উপজেলা চেয়ারম্যানসহ ৪ আসামি রিমান্ডে

অবসরপ্রাপ্ত সেনা সার্জেন্ট অপহরণ মামলার রাঙামাটির বাঘাইছড়ির উপজেলা চেয়ারম্যানসহ ৪ আসামিকে চারদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত।

আসামীরা হলেন- বাঘাইছড়ি উপজেলা চেয়ারম্যান ও পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির উপজেলা সভাপতি বড়ঋষি চাকমা (৩৭) ও জেএসএস নেতা প্রভাত কুমার চাকমা (৩৩), ত্রিদিব চাকমা (৫০), অজয় চাকমা (৩৫)।

রবিবার সকালে রাঙামাটির অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট সাবরিনা আলীর আদালত সব আসামির চার দিন করে রিমান্ড আদেশ মঞ্জুর করেন।

রাঙামাটি আদালত সূত্রে জানা যায়, রবিবার সকালে অবসরপ্রাপ্ত সেনা সার্জেন্ট মুকুল কান্তি চাকমা অপহরণ মামলার আটক আসামীদের পুলিশ আদালত হাজির করে ১০দিনে রিমান্ড আবেদন করে। সংক্ষিপ্ত শুনানি শেষে রাঙামাটির অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট সাবরিনা আলীর বাঘাইছড়ির উপজেলা চেয়ারম্যান বড়ঋষি চাকমা ও পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির একাংশ এমএন লারমা গ্রুপের তিন নেতাসহ চার আসামীর চার দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

রিমান্ডে আদেশের পর পুলিশ আসামিদের কড়া নিরাপত্তায় নিয়ে যাওয়ার সময় স্থানীয় সংবাদ কর্মীরা ছবি তুলতে চাইলে উপজেলা চেয়ারম্যান বড়ঋষি চাকমা সাংবাদিকদের অকথ্য ভাষায় গালি গালাজ করেন।

উল্লেখ্য, রাঙামাটি উপজেলা পরিষদের নির্বাচনকে ঘিরে গত ৩১ মে বাঘাইছড়ি উপজেলার মারিশ্যা এলাকার বাসিন্দা অবসরপ্রাপ্ত সেনাবাহিনীর সার্জেন্ট মুকুল কান্তি চাকমাকে অপহরণ করে নিয়ে যায় সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা। গত ৪ জুলাই এঘটনায় অপহৃত মুকুল চাকমার মেয়ে নমিসা চাকমা বাদি হয়ে উপজেলা চেয়ারম্যানসহ পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির ৯জন নেতাকর্মীর নাম উল্লেখ্য করে বাঘাইছড়ি থানায় একটি অপহরণ মামলা করেন। দীর্ঘ আড়াই পর গত ২০ সেপ্টেম্বর এ মামলার প্রধান আসামি বাঘাইছড়ি উপজেলা চেয়ারম্যান ও পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির উপজেলা সভাপতি বড়ঋষি চাকমা ও জেএসএস নেতা প্রভাত কুমার চাকমা, ত্রিদিব চাকমা, অজয় চাকমা রাঙামাটি চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির হয়ে আত্মসর্মণ করে।

বিডি-প্রতিদিন/ ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬/ সালাহ উদ্দীন

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow