Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৯:১১
সালিশ করে পলাতক ইউপি চেয়ারম্যান
মুন্সীগঞ্জে ২৩ শিক্ষার্থীকে বেত্রাঘাত, এক আসামি রিমাণ্ডে
মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি:
মুন্সীগঞ্জে ২৩ শিক্ষার্থীকে বেত্রাঘাত, এক আসামি রিমাণ্ডে
বেত্রাঘাতে আহত এক শিক্ষার্থী

মুন্সীগঞ্জে গ্রাম্য সালিশে বেত্রাঘাতে ২৩ শিশু-কিশোর শিক্ষার্থী আহতের ঘটনায় ২৫ জনের বিরুদ্ধে দায়ের হওয়া মামলায় হাসান নামের এক আসামিকে দুই দিনের রিমাণ্ড দিয়েছেন আদালত। হাসান বাগবাড়ি গ্রামের মৃত আব্দুর রশীদের ছেলে।

রবিবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে তাকে মুন্সীগঞ্জের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট মো. হায়দার আলীর আদালতে হাজির করা হয়। এ সময় মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সদর থানার ওসি(তদন্ত) মো. মফিজুর রহমান আসামি হাসানের ৫ দিনের রিমান্ডের আবেদন করেন। অপরদিকে আসামি হাসানের পক্ষে জামিনের আবেদন করা হয়। দীর্ঘ শুনানি শেষে আদালত আসামি হাসানের জামিন না মঞ্জুর করে ২ দিনের পুলিশ রিমাণ্ড মঞ্জুর করেন।

উল্লেখ্য, মুন্সীগঞ্জ শহরের কাছে বাগবাড়ী এলাকায় বৃহস্পতিবার বিকেলে গ্রাম্য সালিশের প্রধান পঞ্চসার ইউনিয়নের চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফার নির্দেশে ২৫ শিক্ষার্থীকে সাড়ে ১২ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। এবং প্রত্যেককে ২৫ টি করে বেত্রাঘাত করার নির্দেশ দেওয়া হয়। বেত্রাঘাতে ২৩ শিক্ষার্থী গুরুতর আহত হয়। এ ঘটনায় গুরুতর আহত শিক্ষার্থী সুমনের বাবা তোফাজ্জল হোসেন বাদী হয়ে পঞ্চসার ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফাকে প্রধান আসামি করে ২৫ জনের বিরুদ্ধে মুন্সীগঞ্জ সদর থানায় মামলা দায়ের করেন।

বর্তমানে গোলাম মোস্তফা পলাতক রয়েছেন বলে পুলিশ জানিয়েছে। তাকে আটকের জোর চেষ্টা চালাচ্ছেন বলে জানান সদর থানার ওসি মো. ইউনুচ আলী।

বিডি-প্রতিদিন/এস আহমেদ

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow