Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : ১২ অক্টোবর, ২০১৬ ২০:৩৫
দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে
সেন্টমার্টিনে আটকা পড়েছেন ৩২৪ পর্যটক
দুইদিন ধরে জাহাজ চলাচল বন্ধ
আব্দুস সালাম, টেকনাফ (কক্সবাজার)
সেন্টমার্টিনে আটকা পড়েছেন ৩২৪ পর্যটক

দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে সেন্টমার্টিন দ্বীপে ৩২৪ পর্যটক আটকা পড়েছে বলে জানিয়েছেন সেন্টমাটিন ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান আব্দুর রব। তিনি জানান, গত দুইদিন ধরে দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে টেকনাফ-সেন্টমাটিন রুটে জাহাজ চলাচল বন্ধ থাকায় ভ্রমণে আসা এসব পর্যটক দ্বীপে আটকা পড়ে।

তবে পর্যটকদের সমস্যার কথা চিন্তা করে হোটেল ব্লু-মেরিন, শেনচুর, সমুদ্র কুঠির থাকার ব্যবস্থা ফ্রি করা হয়েছে। তাছাড়া রেস্তোরাঁয় খাওয়ার বিল ৫০ ভাগ করে দেয়। অন্যান্য আবাসিক হোটেল, কটেজ ও রেস্তোরাঁগুলো ও ৫০ ভাগ করা হয়েছে। তবে যদি কোন পর্যটকের সমস্যা সৃষ্টি হয় তাহলে ইউনিয়ন পরিষদের পক্ষ থেকে সমাধান করা হবে বলে জানিয়েছেন।   

আজ বুধবার সকালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার মোহাম্মদ শফিউল আলমের নির্দেশে সেন্টমাটিন ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান আব্দুর রব, সেন্টমাটিন পুলিশ ফাড়ির আইসি টিএসআই আব্দুস সালাম ও ইউপি সদস্য নাজির সেন্টমাটিনের হোটেল ও কটেজগুলো সরেজমিন পরিদর্শন করে ৩২৪ জন পর্যটকের অবস্থান নিশ্চিত করেছে। তবে আবাসিক হোটেল ও রেস্তোরাঁয় পর্যটকরা যেন হয়রানির শিকার না হয় সেদিকে লক্ষ্য রেখে সহনীয় পর্যায়ে সেবা প্রদানের জন্য বলা হয়। তবে পর্যটকদের সার্বক্ষনিক খোঁজখবর নেওয়া হচ্ছে এবং আবহাওয়া ভালো টেকনাফ ফেরত পাঠানোর ব্যবস্থা করা হবে বলে জানায়।  

গতকাল মঙ্গলবার সতর্ক সংকেতের কারণে সমুদ্র উত্তাল থাকায় সেন্টমার্টিন দ্বীপে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচল বন্ধ থাকে। ফলে সেন্টমাটিন ভ্রমণে যাওয়া ৩২৪ জন পর্যটক আটকা পড়ে। এসব পর্যটক সেন্টমাটিন হোটেল ব্লু-মেরিন, শেনচুর, সমুদ্র কুঠির, কুরাল ভিউ, সি-প্রবাল ও সীমান পেরিয়েসহ বিভিন্ন হোটেলে অবস্থান করছে। এদিকে পর্যটকরা ফিরতে না পেরে হতাশা ও উদ্বেগের মধ্যে দিন কাটেচ্ছেন বলে জানা যায়।

এই রুটের পর্যটকবাহী জাহাজ কেয়ারী সিন্দাবাদের টেকনাফ ব্যবস্থাপক শাহ আলম জানান, সর্তক সংকেতর কারণে দুইদিন জাহাজ চলাচল বন্ধ রয়েছে। ফলে সেন্টমার্টিন ভ্রমনে আসা পর্যটকরা আটকা পড়ে। আবহাওয়া পরিস্থিতি ভাল হলে আটকা পড়া পর্যটকদের ফিরে আনা হবে বলে জানায়।  

 

বিডি-প্রতিদিন/ ১২ অক্টোবর, ২০১৬/ আফরোজ

 

 

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow