Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : ২ মার্চ, ২০১৭ ১৫:৫৬ অনলাইন ভার্সন
আপডেট :
চুয়াডাঙ্গায় সেফটিক ট্যাংকে শিশুর লাশ
চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি
চুয়াডাঙ্গায় সেফটিক ট্যাংকে শিশুর লাশ

চুয়াডাঙ্গার ঈশ্বরচন্দ্রপুর গ্রাম থেকে নিখোঁজের এক দিন পর মুক্তা নামে তিন বছরের এক শিশুর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।  

এ ঘটনায় পুলিশ শিশু মুক্তার বাবাসহ দুই জনকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে।

 

বৃহস্পতিবার দুপরে চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার দর্শনা পৌর এলাকার ঈশ্বরচন্দ্রপুর গ্রামের মাঠপাড়ার নাসির উদ্দিনের বাড়ির সেফটিক ট্যাংক থেকে ওই শিশুর লাশ উদ্ধার করা হয়।  

দর্শনা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের অফিসার ইনচার্জ শোনিত কুমার গায়েন জানান, ঈশ্বরচন্দ্রপুর গ্রামের মনিরুজ্জামান ওরফে মিস্টারের তিন বছরের শিশু কন্যা মুক্তা বুধবার বিকালে বাড়ির পাশে একটি মাঠে খেলতে যায়। তখন থেকে শিশুটি নিখোঁজ হয়। বৃহস্পতিবার দুপুরে প্রতিবেশি নাসিরের সেফটিক ট্যাংকির ভিতর স্থানীয়রা শিশু মুক্তার লাশ পড়ে থাকতে দেখে।  

খবর পেয়ে দামুড়হুদা থানা পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

তিনি আরও বলেন, মুক্তার গলায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, শিশুটিকে শ্বাসরোধ করে হত্যার পর ঘাতকরা তাকে সেফটিক ট্যাংকির মধ্যে ফেলে দেয়।

 

বিডি প্রতিদিন/২ মার্চ, ২০১৭/ফারজানা

 

আপনার মন্তব্য

up-arrow