Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শুক্রবার, ২৪ নভেম্বর, ২০১৭

ঢাকা, শুক্রবার, ২৪ নভেম্বর, ২০১৭
প্রকাশ : ১০ মার্চ, ২০১৭ ১৭:০৮ অনলাইন ভার্সন
লামায় দুর্যোগ প্রস্তুতি দিবস পালিত
লামা (বান্দরবান) প্রতিনিধি:
লামায় দুর্যোগ প্রস্তুতি দিবস পালিত

বান্দরবানের লামায় পালিত হয়েছে ‘জাতীয় দুর্যোগ প্রস্তুতি দিবস ২০১৭’। উপজেলা প্রশাসন, উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির আয়োজনে ও এনজিও সেপলিং এর সহযোগিতায় শুক্রবার র‌্যালি, আলোচনা সভা, সচেতনতামূলক চলচিত্র প্রদর্শন ও ফায়ার সার্ভিস কর্তৃক ডিসপ্লে প্রদর্শন করা হয়।

 

বেলা সাড়ে ১০টায় র‌্যালিত্তোর ‘দুর্যোগে প্রস্তুতি সারাক্ষণ, আনবে টেকসই উন্নয়ন’ এই প্রতিপাদ্য বিষয়ের ওপর লামা সরকারী উচ্চ বিদ্যালয় হলরুমে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা মোহাম্মদ শাহী নেওয়াজ। প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা নুরে আলম। বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন, লামা সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক(ভারপ্রাপ্ত) মোজাম্মেল হক, রিপোর্টার্স ক্লাবের সভাপতি মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম, উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা মোঃ জাহাঙ্গীর, লামা ফায়ার সার্বিস ও সিভিল ডিফেন্স সাব অফিসার রিপন কুমার মালাকার, এনজিও সেপলিং ও কারিতাস এর উপজেলা ব্যবস্থাপক।  

সভায় স্বাগত বক্তব্যে রিপোর্টার্স ক্লাবের সভাপতি মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম বলেন, বাংলাদেশে মার্চ মাস থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বিভিন্ন ধরনের দুর্যোগ হয়ে থাকে। দুর্যোগের পূর্বে সচেতন থাকলে পরবর্তী ক্ষয়ক্ষতি কমানো সম্ভব। তিনি দুর্যোগ মোকাবেলার আগাম প্রস্তুতির জন্য ১০৯০ নম্বরে মোবাইল করে এলাকাবাসীকে আবহাওয়ার পূর্বাভাস জেনে দিনের কর্মসূচি ঠিক করার পরামর্শ দেন।

প্রধান অতিথি উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা নুরে আলম বলেন, যেকোনো সময় যেকোনো দুর্যোগ হানা দিতে পারে।  দুর্যোগ মোকাবিলার প্রস্তুত থাকলে টেকসই উন্নয়ন সম্ভব। আর এ প্রস্তুতির লক্ষ্যেই সরকার বিভিন্ন কৌশল ও যন্ত্রপাতির সমন্বয় করছে।

এর মধ্যে তাৎক্ষণিক প্রস্তুতি, স্বল্প ও দীর্ঘ মেয়াদী প্রস্তুতি, প্রস্তুতির পরিকল্পনা, জনবল ও প্রাতিষ্ঠানিক সক্ষমতা সবই সরকারের চিন্তায় রয়েছে। বজ্রপাতের ক্ষয়ক্ষতির কথা চিন্তা করে দুর্যোগ মোকাবেলায় আগাম কোনো সর্তক বার্তার সুযোগ নেই। তবে বিশেষজ্ঞগণের অভিমতের ভিত্তিতে দেশব্যাপি ১০ লাখ তাল গাছ লাগানোর প্রকল্প হাতে নেয়া হয়েছে।

সভাপতির বক্তব্যে উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা মোহাম্মদ শাহী নেওয়াজ বলেন, ঘূর্ণিঝড়, বন্যা, পাহাড়ধস ও ভূমিকম্পসহ নানা দুর্যোগ মোকাবেলায় সরকার নানান কর্মসূচী হাতে নিয়েছে। আমরা পরিবেশের প্রতি যত্নবান হলে প্রাকৃতিক দুর্যোগ কমে যাবে। বিশেষ করে মানবসৃষ্ট দুর্যোগ মোকাবেলায় আমাদের সচেতন হতে হবে।  

 

বিডি প্রতিদিন/১০ মার্চ ২০১৭/হিমেল

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow