Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ২১ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, সোমবার, ২১ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : ১৬ মার্চ, ২০১৭ ১৪:০৪ অনলাইন ভার্সন
আপডেট :
যশোরে পানিসম্পদমন্ত্রী
ভবদহ জলাবদ্ধতা নিরসনে এপ্রিল থেকে নদী খনন
নিজস্ব প্রতিবেদক, যশোর
ভবদহ জলাবদ্ধতা নিরসনে এপ্রিল থেকে নদী খনন

পানি সম্পদ মন্ত্রী আনিসুল ইসলাম মাহমুদ বলেছেন, যশোরের ভবদহ এলাকার জলাবদ্ধতা সমস্যার সমাধানে আগামী শীত মৌসুমে আবারও টিআরএম প্রকল্প শুরু করা হবে। আর এপ্রিলের প্রথম সপ্তাহ থেকেই শুরু হবে নদী খনন।

তিনি বলেন, অন্যান্যবার জলাবদ্ধতা সমস্যার পরে সমাধানের চেষ্টা করা হয়। কিন্তু এবার জলাবদ্ধতা সমস্যার আগেই অর্থাৎ এপ্রিলের প্রথম সপ্তাহ থেকেই নদী খনন কাজ শুরু করা হবে।

বৃহস্পতিবার সকালে ভবদহ অঞ্চলের জলাবদ্ধতার দীর্ঘমেয়াদী সমাধানের ওপর এক জাতীয় কর্মশালার উদ্বোধনকালে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন তিনি। যশোরের জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত এ কর্মশালায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী মোহাম্মদ নজরুল ইসলাম বীর প্রতীক এমপি ও জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ইসমাত আরা সাদেক।  

জেলা প্রশাসক ড. হুমায়ূন কবীরের সভাপতিত্বে কর্মশালায় আরও বক্তব্য রাখেন যশোর-৫ আসনের সংসদ সদস্য স্বপন ভট্টাচার্য, পানি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব ড. জাফর আহমেদ খান ও ভবদহ সমস্যা নিরসনের দাবিতে আন্দোলনরত সংগঠনগুলোর নেতৃবৃন্দ।

প্রধান অতিথির বক্তৃতায় পানি সম্পদ মন্ত্রী আরও বলেন, এর আগে স্থানীয়ভাবে ভুল বোঝাবুঝির কারণে টিআরএম (টাইডাল রিভার ম্যানেজমেন্ট বা জোয়ারাধার প্রকল্প) বাতিল করতে হয়েছিল। সেই প্রকল্প আবার নতুন করে প্ল্যানিং কমিশনে দেওয়া হয়েছে। আগামী শীত মৌসুম থেকেই আবার এই প্রকল্প চালু করা সম্ভব হবে।

তিনি বলেন, এর আগে যাতে জলাবদ্ধতা সমস্যা না হয়, সেজন্য বর্ষা মৌসুমের আগেই এপ্রিলের প্রথম সপ্তাহ থেকে নদী খনন শুরু করা হবে। মন্ত্রী বলেন, নদী খননের পর স্লুইস গেটগুলো খোলা থাকার কথা। কারণ জোয়ার-ভাঁটা না থাকলে জলাবদ্ধতা সমস্যা নিরসন খুবই কঠিন। কিন্তু দেখা যায় যে, স্থানীয় কিছু মানুষ স্লুইস গেটগুলো বন্ধ করে রাখে। এতে প্রায় সাড়ে তিন লাখ মানুষ সরাসরি ক্ষতিগ্রস্ত হন। এ ব্যাপারে স্থানীয় জনগণকে যেমন সচেতন হতে হবে, তেমনি, যারা স্লুইস গেট বন্ধ করে রাখে তাদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে।  

বিডি-প্রতিদিন/১৬ মার্চ, ২০১৭/মাহবুব

আপনার মন্তব্য

up-arrow