Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ১৪ আগস্ট, ২০১৮ ০৯:৫৫ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ১৪ আগস্ট, ২০১৮ ১৪:৪৯
নরসিংদীতে বাস-বর যাত্রীবাহী গাড়ির সংঘর্ষে নিহত ৭, আহত ১৪
নরসিংদী প্রতিনিধি
নরসিংদীতে বাস-বর যাত্রীবাহী গাড়ির সংঘর্ষে নিহত ৭, আহত ১৪
bd-pratidin

নরসিংদীর শিবপুরে যাত্রীবাহী বাস ও বর যাত্রীবাহী মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে ৭ জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন ১৪ জন। মঙ্গলবার সকাল ৮টার দিকে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের শিবপুরের সোনাইমুুড়ি এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতদের মধ্যে চার জনের পরিচয় পাওয়া গেছে। তারা হলেন, সজল (২০), স্নিগ্ধা (৮), প্রান্তিকা (৬), বৃষ্টি (৭)। নিহতদের সবার বাড়ি চাঁদপুর জেলার মতলব।

পুলিশ ও আহতদের সূত্রে জানা গেছে, সকালে নরসিংদীর রায়পুরা থেকে বিবাহ সম্পন্নের পর বর-কনেকে নিয়ে বর যাত্রীবাহী একটি মাইক্রোবাস চাঁদপুর যাচ্ছিল। এসময় ঢাকা থেকে সিলেটগামী একটি যাত্রীবাহী বাস ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের শিবপুরের সোনাইমুুড়ি এলাকায় পৌছলে বাসটির সামনের চাকা ফেটে যায়। গাড়িটি নিয়ন্ত্রণ হারালে বিপরীত দিক থেকে আসা বর যাত্রীবাহী হাইয়েস মাইক্রোবাসটির সাথে মুখোমুখি সংঘর্ঘ হয়। এতে মাইক্রোবাসটি ধুমড়ে-মুচড়ে যায়। এ সময় ঘটনাস্থলেই মাইক্রোবাসের তিন যাত্রী মারা যায়। পরে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে আহতদের উদ্ধার করে বিভিন্ন হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। হাসপাতালে আরও এক জনের মৃত্যু হয়। পরে আহতদের অবস্থার অবনতি হলে মুমূর্ষু অবস্থায় বর-কনে, নারী ও শিশুসহ ১৭ জনকেই ঢাকায় প্রেরণ করা হয়। সেখানে আরও ৩ জনের মৃত্যু হয়। 

ইটাখোল হাইওয়ে ফাঁরির সার্জেন্ট হাফিজ মিয়া বলেন, যাত্রীবাহী বাসটির সামনের চাকা ফেটে গেলে গাড়িটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলে। পরে বর যাত্রীবাহী মাইক্রোবাসটির উপরে উঠিয়ে দেয়। বাসটিকে আটক করা গেলেও চালক পালিয়ে গেছে।

বিডি প্রতিদিন/ ১৪ আগস্ট ২০১৮/ ওয়াসিফ

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow