Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ২১ জানুয়ারি, ২০১৭

প্রকাশ : মঙ্গলবার, ৫ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৪ জুলাই, ২০১৬ ২৩:০৭
ভেষজ
ক্যারোটিনয়েড

ক্যারোটিনয়েড হলো উদ্ভিদের মধ্যস্থিত রঞ্জক বা রঙিন পদার্থ। এসবের মধ্যে ক্যারোটিন, বিটা ক্যারোটিন, লুটিন, লাইকোপেন, ক্রিপটোজেন্থিন এবং জিজেন্থিন আমাদের শরীরের জন্য খুবই প্রয়োজনীয়। এগুলো অ্যালার্জিক প্রতিক্রিয়ার বিপরীতে কাজ করে।

উৎস : সবুজ, হলুদ শাকসবজিতে প্রচুর পরিমাণে ক্যারোটিনয়েড পাওয়া যায়। যেমন গাজর, মিষ্টি কুমড়া, হলুদ, পালংশাক, ডাঁটা শাক ইত্যাদি।

ট্রিপটোফেনসমৃদ্ধ খাবার যা সেরোটোনিনে পরিবর্তিত হয় তা এড়িয়ে চলতে হবে। যেমন : গরুর মাংস, চিংড়ি মাছ ইত্যাদি।

ঋষি মাশরুম : এই মাশরুমের অ্যালার্জিক প্রতিক্রিয়া কমানোর এক অসাধারণ ক্ষমতা আছে। এটা হিস্টামিন তৈরিতে বাধা প্রদান করে ও প্রদাহ কমায়।

অনন্তমূল : এই গাছের পাতায় ও শিকড়ে টাইলোপিরিন নামে যে উপাদান থাকে তা অ্যালার্জিজনিত শ্বাসনালির প্রদাহসহ অ্যাজমার প্রতিষেধক হিসেবে কাজ করে।

কুচিলা : অ্যালার্জি থেকে রক্ষা পাওয়ার এক অনন্য নাম কুচিলা। এই গাছে স্টিকনিন, ব্লুসিনসহ নানা মূল্যবান উপাদান তৈরি হয়।

হডা. আলমগীর মতি।

up-arrow