Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৩১ আগস্ট, ২০১৬ ২৩:০৮
হর্নড লিজার্ড

উত্তর আমেরিকা ও মেস্কিকোতে এক প্রকার টিকটিকি বা গিরগিট জাতীয় সরীসৃপ দেখা যায়। যারা তাদের চোখ দিয়ে ফোয়ারার মতো রক্ত উৎসারিত করে।

এদের নাম হলো হর্নড টোড অথবা হর্নড লিজার্ড।

এ আশ্চর্য ঘটনার বিশ্লেষণের জন্য অনেক তত্ত্বের অবতারণা হয়েছে। এগুলো থেকে লক্ষ্য করা গেছে যে, এ সময় লিজার্ড তার মাথার রক্তের চাপ বৃদ্ধি করতে পারে। চোখের ক্ষুদ্র রক্ত কোষের মেমব্রেইন বা ঝিল্লিকে বিদীর্ণ করে দিতে পারে এবং কয়েক ইঞ্চি দূর পর্যন্ত ফোয়ারার মতো রক্তের ফোঁটা উৎসারিত করতে পারে। জীবতত্ত্ব বিশেষজ্ঞদের মতে, তাদের এ কাজ একটা আত্মরক্ষামূলক যান্ত্রিক ব্যবস্থা। যখন আক্রমণকারীর চোখে বা চেহারায় এ রক্তের ফোঁটার ফিটা লাগে তখন এ রক্ত যন্ত্রণাদায়ক বস্তুর কাজ করে। হর্নড লিজার্ড আইগুয়ানাইড পরিবারভুক্ত। প্রায় ১৪ রকমের লিজার্ড রয়েছে। এদের বৈশিষ্ট্য হলো- ছোরার আকৃতিবিশিষ্ট মাথার কাঁটা বা শৃঙ্গ। এর আকৃতির বিশেষত্বের মধ্যে আছে ডিম্বাকৃতি শরীর এবং শরীরের পার্শ্বদেশে তীক্ষাগ্র আঁশ এবং ঝাকড়া চুল। লিজার্ডগুলো অনধিক ৭.৫ সে.মি. থেকে ১২.৫ সে.মি. (৩ থেকে ৫ ইঞ্চি) দীর্ঘ হয়। এরা সাধারণত মরুভূমি অঞ্চলে বা প্রায় মরুভূমিতে পরিণত অঞ্চলের বালুময় এলাকায় বাস করে। এরা কীটপতঙ্গ বিশেষভাবে পিপীলিকা ধরে খায়।

তারা কাত হয়ে পালিয়ে নিজেদের লুকিয়ে রাখে এবং মাথা ছাড়া সমগ্র শরীর ডুবিয়ে রাখে। কখনো কখনো এদের পালিত জন্তু হিসেবে বাড়িতে রাখা হয়। কিন্তু তারা কদাচিৎ দীর্ঘকাল বন্দিত্ব অবস্থায় থাকে।

আরিফুজ্জামান

up-arrow