Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ৯ নভেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা
আপলোড : ৮ নভেম্বর, ২০১৬ ২৩:১৩

বনাঞ্চল কমছে

পরিবেশের জন্য সৃষ্টি হচ্ছে হুমকি

বনাঞ্চল কমছে

বাংলাদেশে বনাঞ্চলের পরিমাণ ক্রমান্বয়ে কমছে। অবস্থাটা এতটাই নাজুক হয়ে পড়েছে যে, এশিয়ার যেসব দেশে বনাঞ্চল সবচেয়ে কম সে তালিকায়ও ঢুকে গেছে বাংলাদেশের নাম। এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের প্রস্তুতকৃত তালিকায় বলা হয়েছে, এশিয়ায় সবচেয়ে বেশি বনাঞ্চল লাওসে। সেদেশের মোট আয়তনের ৯২.৭ শতাংশই বনাঞ্চল। এরপরই রয়েছে ভুটান, ব্রুনাই, মালয়েশিয়া ও দক্ষিণ কোরিয়া। এই চার দেশের মধ্যে ভুটানের রয়েছে ৮১ দশমিক ৫ শতাংশ বনাঞ্চল। আর ব্রুনাই, মালয়েশিয়া ও দক্ষিণ কোরিয়ায় রয়েছে যথাক্রমে ৭৯ দশমিক ৭, ৬৭ দশমিক ৬ এবং ৬৩ শতাংশ ৭ শতাংশ বনাঞ্চল। এশিয়ায় সবচেয়ে বনাঞ্চল কম পাকিস্তানে। এ দেশটির আয়তনের মাত্র ১ দশমিক ৯ শতাংশ বনাঞ্চল। কম বনাঞ্চলের দিক থেকে চেঙ্গিস খানের দেশ মঙ্গোলিয়ার স্থান দ্বিতীয়। সেদেশের ৮ দশমিক ৪ শতাংশ এলাকায় বন রয়েছে। তারপরই বাংলাদেশের স্থান। এ দেশের ১১ পয়েন্ট ২ শতাংশ মাত্র বনভূমি। কম বনাঞ্চলের তালিকাভুক্ত দেশগুলোর মধ্যে ভারত ও চীনের নামও রয়েছে। তবে এই দুই দেশের বনাঞ্চলের পরিমাণ যথাক্রমে ২৪ দশমিক ১ শতাংশ এবং ২৪ দশমিক ৮ শতাংশ। অর্থাৎ বাংলাদেশের চেয়ে গড়ে দুই গুণেরও বেশি। গত চার দশকে বাংলাদেশে বনাঞ্চলের পরিমাণ হ্রাস পেয়েছে ব্যাপকভাবে। বিশেষ করে পার্বত্য চট্টগ্রামে যেভাবে বন উজাড় হয়েছে তা উদ্বেগজনক। ঘূর্ণিঝড় ও জলোচ্ছ্বাসের মোকাবিলায় বনাঞ্চল গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। বনাঞ্চল উজাড় হওয়ার পরিণতিতে এক্ষেত্রে বাংলাদেশ ঝুঁকিতে পড়েছে। ২০০৫ সালে জাতিসংঘ খাদ্য ও কৃষি সংস্থা (ফাও) পরিচালিত বৈশ্বিক বনভূমি সম্পদ পরিমাপের তথ্য অনুযায়ী, পৃথিবীর মোট স্থলভাগের ৩০ শতাংশ ছিল বনভূমি। পৃথিবী প্রতিবছর যে পরিমাণ বনভূমি হারাচ্ছে, তার আয়তন ভুটান, ফিজি এবং ব্রুনাইয়ের মোট আয়তন অর্থাৎ ৬২ হাজার বর্গকিলোমিটারের চেয়েও বেশি এলাকা। ফাওয়ের প্রতিবেদনে বলা হয়, বৃক্ষনিধনের ফলে প্রতিদিন পৃথিবী প্রায় ২০০ বর্গকিলোমিটার আয়তনের বনভূমি হারাচ্ছে। সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চল ১৯৯০ থেকে ২০০৫ সাল পর্যন্ত ১৫ বছরে এক কোটি হেক্টর বনভূমি হারিয়েছে। বনাঞ্চল হ্রাস পাওয়ায় বিশ্বের আবহাওয়ায় বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দিচ্ছে। পৃথিবী মানুষের বসবাসের অযোগ্য হয়ে উঠছে। অস্তিত্বের স্বার্থেই বনভূমি রক্ষায় আমাদের যত্নবান হতে হবে।


আপনার মন্তব্য