Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৯ অক্টোবর, ২০১৭

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৯ অক্টোবর, ২০১৭
প্রকাশ : রবিবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২২:৪১
ইতিহাস
মুবারক শাহ

খিজির খানের মৃত্যুর পর তার পুত্র মুবারক শাহ দিল্লির সিংহাসনে আরোহণ করেন। তিনি একজন সুশাসক ছিলেন; কিন্তু সারওয়ার উল-মুলক নামে একজন অভিজাত কর্তৃক তিনি ১৪৩৪ খ্রিস্টাব্দে নিহত হন।

মুবারক শাহ একজন বিদ্যোৎসাহী সুলতান ছিলেন। ইয়াহিয়া-বিন-আহমদ তার ‘তারিখ-ই-মুবারকশাহী’ নামক ইতিহাস গ্রন্থখানি সুলতানের নামে উৎসর্গ করেছিলেন। মুবারক শাহের মৃত্যুর পর তার ভ্রাতুষ্পুত্র মুহম্মদ শাহ সিংহাসনে আরোহণ করেন। নতুন রাজা অল্পকালের মধ্যেই তার পিতৃব্যের মৃত্যুর প্রতিশোধ গ্রহণ করলেন। সারওয়ার-উল-মুলক সুলতানের সৈন্য কর্তৃক নিহত হন। তিনি এগার বছর রাজত্ব করেছিলেন।

মুহম্মদ শাহের পর তার পুত্র আলাউদ্দিন আলম শাহ্ সিংহাসন লাভ করেন। আলাউদ্দীন আলম শাহ সর্বশেষ ও সর্বাপেক্ষা দুর্বল রাজা ছিলেন। ১৪৫১ খ্রিস্টাব্দে তিনি স্বেচ্ছায় বাহলুল লোদীকে ক্ষমতা ছেড়ে দেন।

এভাবে সৈয়দ বংশের অবসান এবং লোদী বংশ প্রতিষ্ঠিত হয়। ১৪৭৮ খ্রিস্টাব্দে আলম শাহের মৃত্যু হয়। লোদী সুলতানগণ প্রকৃতপক্ষে দিল্লির সিংহাসনে একমাত্র পাঠান বংশের লোক ছিলেন। দিল্লির অন্যান্য সুলতান খাঁটি অথবা মিশ্র তুর্কি ছিলেন।

জাফর খান

এই পাতার আরো খবর
up-arrow