Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : শুক্রবার, ১ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১ জুলাই, ২০১৬ ০০:৪০
ঈদ নাটকের শীর্ষ তারকারা
ঈদ নাটকের শীর্ষ তারকারা
ঈদ নাটকের শীর্ষ তারকাদের মধ্যে অন্যতম জাহিদ হাসান, পূর্ণিমা, মোশাররফ করিম, নুসরাত ইমরোজ তিশা, আনিসুর রহমান মিলন, জাকিয়া বারী মম, তাহসান, মোনালিসা এবং অপূর্ব

ঈদ মানেই টিভি নাটক। বাংলাদেশের বিনোদন মাধ্যমে এটা দীর্ঘ দিনের রেওয়াজ হয়ে গিয়েছে। তাই প্রতি ঈদেই শুরু হয়ে যায় হুলুস্থূল কাণ্ড। শিল্পীরা ঘুম হারাম করে শুধু শুটিং নিয়ে দৌড়-ঝাঁপ করেন। এখনো চলছে শেষ মুহূর্তের শুটিং। কিন্তু হিসাব হাতে চলে এসেছে সবার, কার কয়টি নাটক প্রচার হচ্ছে। এবারের ঈদের শীর্ষ তারকাদের নিয়ে বিশেষ ফিচার— 

 

জাহিদ হাসান

জাহিদ হাসান মানেই এক্সক্লুসিভ। গত কয়েক বছর ধরে তিনি অভিনয় একেবারেই কমিয়ে দিয়েছিলেন। শুধু নির্মাণ নিয়েই ব্যস্ত ছিলেন। কিন্তু এবার ভিন্নচিত্র। জাহিদ হাসান এবারের ঈদে অভিনেতা হিসেবেই পুরোদমে জেগে উঠেছেন। গত দু-তিন মাস ধরে তিনি ঈদের নাটকে অভিনয় নিয়েই ব্যস্ত ছিলেন। এখনো আছেন। উত্তরা তো বটেই, ঢাকার আশপাশেও তিনি শুটিং নিয়ে ছোটাছুটি করেছেন। তবে অভিনয়ের পাশাপাশি জাহিদ হাসান নির্মাণও করেছেন। সম্প্রতি নিজের জন্মস্থান সিরাজগঞ্জে নিজের পরিচালনায় সাত পর্বের একটি ধারাবাহিক নির্মাণ করে এসেছেন। ‘ঈদ মোবারক’ শিরোনামের নাটকটি প্রচার হবে এবার। আর অসংখ্য নাটকে অভিনয় করেছেন। এর মধ্যে  মুহাম্মদ মোস্তফা কামাল রাজের পরিচালনায় ‘ছেলে মানুষী’, শামীমা শাম্মীর ‘রক্তদ্রোণ’, অঞ্জন আইচের ‘ডা. জাহিদ হাসান’, নোমান রুনির ‘ঘাড়তেড়া মজনু’, সাজ্জাদ সুমনের ‘কুফা রাশি’ অন্যতম।

 

পূর্ণিমা

সংসার জীবনে স্থায়ী হওয়ার জন্যই চলচ্চিত্রে অভিনয় ছেড়ে দিয়েছেন পূর্ণিমা। কিন্তু নাটকে তিনি নিয়মিত হয়েছেন। গত বছর থেকেই তাকে বিভিন্ন নাটকে দেখা যাচ্ছে। এবারও তার ব্যতিক্রম হবে না। বেশ কয়েকটি নাটকে অভিনয় করেছেন তিনি। এর মধ্যে একক, টেলিফিল্ম এবং ধারাবাহিক রয়েছে। ঈদ উপলক্ষে মাসুদ সেজানের সাত পর্বের ধারাবাহিক ‘লাভ অ্যান্ড কোং’ এ অভিনয় করেছেন তিনি। গায়ক হৃদয় খানের বিপরীতে অভিনয় করেছেন ‘ফিরে যাওয়া হলো তার’ নাটকে। এ ছাড়াও সম্প্রতি মীর সাব্বিরের বিপরীতে ইমরাউল রাফাতের নাটক ‘ভিমরতি বিড়ম্বনা’র শুটিংও শেষ করেছেন বলে জানিয়েছেন এ তারকা। তিনি মনে করেন, নাটকের মাধ্যমে তিনি এখনো তার ভক্তদের সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করছেন।

 

মোশাররফ করিম

ঈদ মানেই মোশাররফ করিম। আর মোশাররফ মানেই হাসির নাটক, কমেডি স্বাদ— এটা বাংলাদেশের মানুষের হৃদয়ে গেঁথে গেছে। এবার ‘সিকান্দার বক্স’ সিরিজ নেই বলে তার ভক্তদের মন খারাপ। কিন্তু মোশাররফ করিম সেই শূন্যস্থান আরও তুমুল কোনো কমেডি নাটক দিয়ে পূরণ করবেন বলেই আশাবাদী সবাই। হয়তো হচ্ছেও তাই। ইতিমধ্যে মেহেদী হাসানের তলোয়ার, সাগর জাহানের ‘অ্যাভারেজ আসলাম’, ‘চুপ, ভাই কিছু ভাবছেন’, সাজিন আহমেদ বাবুর ‘কিড সোলায়মান’, আজাদ আবুল কালামের ‘যমজ’, মারুফ মিঠুর ‘ইয়েস বস’, মোরসালিন শুভর ‘একটা লাইক দেবেন প্লিজ’, শামস করিমের ‘চোর’ এবং ‘চান্স মাস্টার’ এবং ‘গোপাল ভাঁড়’সহ পাশাপাশি বেশ কয়েকটি টেলিফিল্মেও থাকছেন মোশাররফ করিমের উজ্জ্বল উপস্থিতি। এবারে ঈদের আয়োজনে ৩০টির বেশি নাটকে দেখা যাবে এ তারকাকে। আর গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে, এ শিল্পীকে নিয়ে এবার ফেস্ট হচ্ছে। ‘মোশাররফ করিম কমেডি ফেস্ট’ শিরোনামে সাত দিনে সাতটি নাটক প্রচার হবে এবার জিটিভিতে। এ থেকেই বোঝা যায়, কমেডি নাটকে মোশাররফ করিমের জনপ্রিয়তা।

 

নুসরাত ইমরোজ তিশা

নুসরাত ইমরোজ তিশা— এ নামটি ছোটপর্দায় মহাতারকার মতো। ঈদ হচ্ছে, আর তিশার নাটক থাকবে না তা হয় না, হবেও না। ভক্তদের আগ্রহের কারণে টিভি চ্যানেলগুলোর শিল্পী তালিকায় অবধারিতভাবেই তিশার নাম থাকে। এবারও তার ব্যতিক্রম হয়নি। বেশ কয়েকটি নাটকে অভিনয় করেছেন তিনি। তিশা জানিয়েছেন, বরাবরের মতোই তিনি ভিন্নতা বজায় রেখেছেন। একেক নাটকের গল্প একেক রকম। এনটিভি, বাংলাভিশন, আরটিভি, চ্যানেল আই, এটিএন বাংলাসহ সব চ্যানেলেই দেখা যাবে তিশাকে। তিনিও এখন শেষ মুহূর্তের শুটিং নিয়ে ব্যস্ত রয়েছেন। তবে তিশা এবার শুধু ছোটপর্দাতেই নয়, বড়পর্দায়ও থাকবেন। তার অভিনীত ‘মেন্টাল’ ছবিটি মুক্তি পাচ্ছে এবারের ঈদে। এতে শাকিব খানের বিপরীতে অভিনয় করেছেন তিনি। তাই বলে ছোটপর্দাকে অবহেলা করেননি। নিয়মিতই অভিনয় করেছেন।  

 

আনিসুর রহমান মিলন

আনিসুর রহমান মিলন ছোটপর্দার জনপ্রিয় মুখ। কিন্তু বর্তমানে তার পা দুই নৌকায়। এক পা নাটকে, অন্য পা চলচ্চিত্রে। তবে ঈদ উৎসবে অংশ নেওয়ার জন্য তিনি বেশ কয়েকটি নাটকে অভিনয় করেছেন। একক নাটক, টেলিফিল্ম এবং ঈদ ধারাবাহিকে অভিনয় করেছেন তিনি। এরই মধ্যে ৬ পর্বের একটি ধারাবাহিকের অভিনয় শেষ করেছেন তিনি। এ ছাড়াও সকাল আহমেদের চারটি, চয়নিকা চৌধুরীর তিনটি, সাখাওয়াত মানিকের একটি টেলিফিল্মসহ তিনটি খণ্ডনাটক, নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুলের একটি টেলিফিল্ম, রওনক হাসানের পরিচালনায় একটি খণ্ডনাটক, তপু খানের একটি, কায়সার আহমেদের একটি, রুবায়েতের পরিচালনায় একটি নাটকসহ ঈদে সব মিলিয়ে ২০টির মতো নাটক ও টেলিফিল্মে অভিনয় করেছেন মিলন। তিনি জানিয়েছেন, সবগুলো কাজেরই গল্প দেখে তিনি অভিনয় করেছেন। দর্শক তার নাটকে বেশ ভিন্নতা পাবে বলেও আশাবাদী তিনি।

 

জাকিয়া বারী মম

জাকিয়া বারী মমও টিভি নাটকে নির্ভরযোগ্য মুখ। তাই ঈদেও তার অভিনীত অসংখ্য নাটক থাকছে। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য নির্মাতা হচ্ছেন শিহাব শাহীন। এই নির্মাতার বেশ কয়েকটি নাটকে অভিনয় করেছেন মম। পাশাপাশি চয়নিকা চৌধুরী, সকাল আহমেদ, নুজহাত আলভী আহমেদ, মিজানুর রহমান আরিয়ানদের নাটকেও দেখা যাবে মমকে। এই শিল্পী জানিয়েছেন, বেশ বৈচিত্র্যময় গল্পের নাটকে তিনি এবার অভিনয় করেছেন। নাটকগুলো দেখে মম ভক্তরা বেশ তৃপ্তি পাবেন বলে আশাবাদী শিল্পী। অবশ্য তার নমুনা কিছুটা পাওয়া যাচ্ছে। মম অভিনীত ‘এক্স ফ্যাক্টর থ্রি’ নিয়ে এরই মধ্যে শুরু হয়ে গেছে দর্শকের আগ্রহ। এই টেলিফিল্মটির টিজার দর্শকের মাঝে বেশ সাড়া ফেলেছে।   

 

তাহসান

গত দুই বছর ধরে গানের থেকে অভিনয়েই বেশি মনোযোগী তাহসান। তাই গায়কের থেকে তাকে এখন অভিনেতা বলাই ভালো। যদিও শিল্পী নিজেকে অভিনয়ের থেকে গানেই বেশি এগিয়ে রাখেন। কিন্তু ভক্তদের মনোযোগ তার অভিনয়ের দিকেই। তাই এবারের ঈদে প্রায় হাফডজন নাটকে দেখা যাবে তাকে। সবগুলো নাটকই ভালো মানের বলে মনে করছেন তাহসান। মম, রিচি সোলায়মান, মিমের পাশাপাশি এবার নিজ স্ত্রী মিথিলার সঙ্গেও অভিনয় করেছেন তাহসান। মিজানুর রহমান আরিয়ানের ‘কথোপকথন’ নামের একটি টেলিছবিতে দেখা যাবে তাদের। রিচি সোলায়মানকে নিয়ে কাজ করছেন শিহাব শাহীন নির্দেশনায় ‘সে রাতে বৃষ্টি ছিল’ নামের একটি নাটক। মমর সঙ্গে শিহাব শাহীনের আরও একটি নাটক ‘রূপকথা এখন আর হয় না’তেও অভিনয় করেছেন তিনি। বিদ্যা সিনহা মিমের সঙ্গে ‘সেই মেয়েটা’ নামে একটি টেলিছবিতে অভিনয় করেছেন তাহসান। ঊর্মিলার সঙ্গে ‘ক তে কাজী, খ তে খেলা’ নামের একটি নাটকেও অভিনয় করেছেন এ তারকা।

 

মোনালিসা

মার্কিন মুল্লুক থেকে দেশে ফিরেই আবার ব্যস্ত হয়ে গিয়েছেন মোনালিসা। এবার তার বেশ কয়েকটি নাটক প্রচার হবে। এখন পর্যন্ত আটটি নাটকে অভিনয় করছেন তিনি। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হচ্ছে সাগর জাহানের ‘অ্যাভারেজ আসলাম’ ও সাজিন আহমেদ বাবুর ‘কিড সোলায়মান’ নামের দুটি ধারাবাহিক। রায়হান জুয়েলের ‘চিরকুট’ ও এস এ হক অলিকের নাম ঠিক না হওয়া আরেকটি নাটকেও অভিনয় করছেন তিনি। অনন্য ইমনের ‘ফিনিক্স ফ্লাই’ নামের একটি নাটকেও দেখা যাবে মোনালিসাকে।

 

অপূর্ব

নাটকে রোমান্টিক হিরো কে— প্রশ্নটি করতে দেরি উত্তর পেতে দেরি নেই। সবার তালিকাতেই অপূর্ব থাকবেন। তাই ঈদ নাটকে অপূর্বর চাহিদা অন্যতম। এবারও তিনি বেশকিছু নাটকে অভিনয় করেছেন। এগুলোর মধ্যে অবশ্যই শীর্ষে থাকবে ‘এক্স ফ্যাক্টর থ্রি’। এই সিক্যুয়ালটি এরইমধ্যে আলোচনায়। এ ছাড়া আরও অসংখ্য নাটক রয়েছে তার। অপূর্ব নাটকগুলো নিয়ে আশাবাদী।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow