Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : শনিবার, ১৬ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৫ জুলাই, ২০১৬ ২৩:৫০
আমি সংখ্যা হিসাব করে কাজ করি না
আলী আফতাব
আমি সংখ্যা হিসাব করে কাজ করি না

চলচ্চিত্র, বিজ্ঞাপন, নাটকে অভিনয়ের মাধ্যমে যোগ্যতার প্রমাণ দিয়েছেন ভাবনা। ঈদে বেশকিছু নাটকে অভিনয় করেছেন তিনি। অভিনয় ও সমসাময়িক বিষয় নিয়ে আজ তার সাক্ষাৎকার—

 

ঈদ কেমন কাটল?

হ্যাঁ, ভালো। ঈদে আমি বাসায় ছিলাম। আত্মীয়স্বজনদের আপ্যায়ন করেছি। আর ঈদে আমি চেষ্টা করি নিজের অভিনীত নাটক দেখার। কারণ, নিজের অভিনয় না দেখলে তো বুঝতে পারব না আমার কোথায় কোথায় সমস্যা আছে।

ঈদে কয়টি নাটকে অভিনয় করেছেন?

আমি কোনো সময় সংখ্যা হিসাব করে অভিনয় করি না। ভালো কাজ হলে তবেই করি। এবারের ঈদের কাজগুলোর মধ্যে রয়েছে— ‘অশ্বডিম্ব’, ‘ক্যাকটাস, ‘মোহিনী’, ‘ওয়াও ফ্যান্টাসি’, ‘বাপ বেটা দিওয়ানা, টার্নিং পয়েন্ট, অসম্পূর্ণ ইত্যাদি।

অভিনয়ের ক্ষেত্রে কোন বিষয়টির ওপর আপনি বেশি জোর দেন?

অভিনয়ের ক্ষেত্রে প্রথমে আমি দেখি গল্প তারপর নির্মাতা। আমি সব সময় ভিন্ন ভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি। একই রকম চরিত্রে অভিনয় করতে ইচ্ছা করে না। কারণ একই চরিত্রে অভিনয় করে নিজেকে সুন্দরভাবে ফুটিয়ে তোলা যায় না। তাই আমি চ্যালেঞ্জিং চরিত্রে অভিনয় করতে পছন্দ করি।

শুনলাম ঈদের পর পরই আবার কাজ শুরু করে দিয়েছেন?

হ্যাঁ, ঈদের পর ‘হিরো ভাইয়ের হিরোইন’ শিরোনামের একটি নাটকের কাজ শেষ করেছি। কিছু দিনের মধ্যে মোহাম্মদ মোস্তফা কামাল রাজের ঈদের একটি কাজ করব। আর আগামী ২১ জুলাই থেকে ‘বিসমিল্লা খান’ শিরোনামের একটি নাটকের কাজ শুরু হবে।

আপনাকে ধারাবাহিক নাটকে কম দেখা যায় কেন?

একটা সময় কিন্তু আমি ধারাবাহিকে অভিনয় করেছি। এখন ধারাবাহিকে অভিনয়ের জন্য তেমন সময় পাই না। তা ছাড়া ধারাবাহিকে দীর্ঘদিন ধরে অভিনয় করতে হয়। আর শেষের দিকে তো অনেক শিল্পীকেই খুঁজে পাওয়া যায় না। এ জন্য দর্শক ধারাবাহিক থেকে মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছে। তা ছাড়া আমি এখনো পড়াশোনা করছি। অভিনয়ের জন্য সপ্তাহে মাত্র তিন দিন সময় পাই। বাকি দিনগুলোয় ক্লাস থাকে। তাই ধারাবাহিকে বর্তমানে অভিনয় করছি না।

এই বছরই মনে হয় মুক্তি পেতে যাচ্ছে আপনার প্রথম চলচ্চিত্র ‘ভয়ঙ্কর সুন্দর’। আপনার প্রত্যাশা সম্পর্কে জানতে চাই?

ছবিটি এই বছরের কবে মুক্তি পাচ্ছে আমি ঠিক করে বলতে পারছি না। আর প্রত্যাশার জায়গা নিয়ে বলতে চাই। চলচ্চিত্রে অভিনয় করব, এটা আমার অনেক দিনের স্বপ্ন ছিল। এই ছবিতে অভিনয়ের মাধ্যমে আমার স্বপ্ন পূরণ হয়েছে। এ জন্য অনেক শ্রম দিয়েছি। সর্বোচ্চ চেষ্টা দিয়ে এতে অভিনয় করেছি। ছোট পর্দার ভাবনাকে রুপালি পর্দায় কেমন লাগে, তা দর্শকের কাছ থেকে শোনার জন্য অধীর আগ্রহে বসে আছি। তবে প্রথম কাজ বলে অনেক ভুলত্রুটি হতেই পারে। আশা করি, তা সবাই ক্ষমার দৃষ্টিতে দেখবেন। ’

ঈদে হলে ছবি দেখতে গিয়েছিলেন?

আমি সব সময় চেষ্টা করি ঈদে হলে গিয়ে ছবি দেখতে। কিন্তু জঙ্গি আতঙ্কে এবার আর হলে গিয়ে ছবি দেখতে পারিনি।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow