Bangladesh Pratidin

ঢাকা, মঙ্গলবার, ৬ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ২০ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৯ অক্টোবর, ২০১৬ ২১:৪৪
মাহি-ফারিয়া-জলির পর কে
আলাউদ্দিন মাজিদ
মাহি-ফারিয়া-জলির পর কে

মাহিয়া মাহি, নুসরাত ফারিয়া ও জলি। তিনজনই শীর্ষ চলচ্চিত্র প্রযোজনা সংস্থা জাজ মাল্টিমিডিয়ার আবিষ্কার। চলচ্চিত্রে শিল্পী সংকট পূরণ এবং দর্শকদের নতুনত্ব দিতে সংস্থাটি বরাবরই নতুন শিল্পী, গল্প, নির্মাতা এবং নির্মাণ উপহার দিয়ে আসছে। সেই ধারাবাহিকতায় এবার তারা আরেকজন নায়িকা উপহার দিতে যাচ্ছে। তবে কে হবেন এবারের নায়িকা সে ব্যাপারে কঠোর গোপনীয়তা রক্ষা করে চলেছেন জাজের কর্তা ব্যক্তিরা। তাদের কথায় বিষয়টি চমক হিসেবেই থাক এখন। শিগগিরই সংবাদ সম্মেলন করে সবার সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেওয়া হবে আগন্তুককে। এদিকে জাজের ফ্যান পেইজে এ বিষয়ে একটি কুইজের আয়োজন করা হয়েছে। তাতে লিখা হয়েছে—এরপর কে হবেন জাজের ঘরের নতুন নায়িকা? নামটি সঠিকভাবে বলতে পারলেই পুরস্কারস্বরূপ জাজের পক্ষ থেকে মিলবে ৩২ ইঞ্চি এলইডি টেলিভিশন।

এদিকে জাজের নতুন মুখ নিয়ে ইতিমধ্যে মিডিয়ায় আলোচনা শুরু হয়ে গেছে। কেউ নাকি গন্ধ শুঁকেই বলে দিতে পারছেন এবারের নায়িকার নাম। আবার অনেকে অনুমান করেও বলছেন কারও কারও কথা। এমন নামের তালিকায় এখন পর্যন্ত যুক্ত হয়েছেন তানজিন তিশা, হুমায়রা ফারিন, পিয়া বিপাশা, তামান্না, নাফিসা কামাল ঝুমুরসহ কয়েকজনের নাম। এই পাঁচজনের মধ্যে কার মাথায় উঠবে জাজের মুকুট এমন প্রশ্নে রহস্য করেই উত্তর দিলেন প্রতিষ্ঠানটির কর্ণধার আবদুল আজিজ। মুচকি হেসে তিনি বললেন ধরে নেন এর মধ্য থেকে যে কোনো একজন। অথবা কেউই নয়। তবে এ কথা জোর দিয়ে বলতে পারি নতুন যে মুখ এবার উপহার দিচ্ছি সে আগের নায়িকাদের মত প্রথমবার চলচ্চিত্র জগতে পা রাখছে। মিডিয়াতে নতুন নয়। মডেল এবং র‌্যাম্প হিসেবে তার পরিচিতি আছে। তাকে দেখলে মনে হবে পাশের বাড়ির সেই মেয়েটি। যে আমাদের অনেক দিনের চেনা। আবদুল আজিজ আরও বলেন, নতুন মুখটি ২০১৮ সালে আমাদের চলচ্চিত্র জগতে নায়িকা হিসেবে লিড করবে এ কথা নিশ্চিত করে বলতে পারি। ২০১৭ সালে লিড করবে নুসরাত ফারিয়া। নাম প্রকাশে কেন এই ইঁদুর বিড়াল খেলা, এমন প্রশ্নে আবদুল আজিজের সোজা সাপ্টা জবাব—‘ভাই আমি চমকে বিশ্বাসী। দর্শকও ব্যাপারটি পছন্দ করে। তাই সোজা করে কোনো কথা বলতে চাই না। একটু ঘুরিয়ে-ফিরিয়ে বলে দর্শকের মজার পরিধি বাড়িয়ে দিতে চাই।’

চলচ্চিত্র জগেক চমকে দিতে আর কী কী করবেন? এমন প্রশ্নের উত্তরে আজিজ বলেন, আমার চলচ্চিত্র জীবনের শুরুটাই ছিল চমকে ভরা। একাধারে নতুন নায়ক নায়িকা বাপ্পি-মাহি, নতুন গল্প আর এ দেশে প্রথম ডিজিটাল ছবি হিসেবে ‘ভালোবাসার রঙ’ উপহার দিয়েছি। সিনেমাহলে ডিজিটাল প্রজেক্টর স্থাপন করেছি। সবই করেছি দেশীয় চলচ্চিত্রের উন্নয়নের স্বার্থে। সিনেমাহলে আমার প্রজেক্টর স্থাপনের কারণে পাইরেসি রোধ সম্ভব হয়েছে। যৌথ প্রযোজনার মাধ্যমে চলচ্চিত্র ব্যবসার উন্নয়ন ও ছবি নির্মাণ বৃদ্ধি করেছি। নতুন নির্মাতাদের সুযোগ দিচ্ছি। বন্ধ সিনেমা হল চালু করেছি এবং মাল্টিপ্লেক্স নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছি। আজিজ বলেন, নিজের ব্যবসার লাভ ক্ষতি আমার কাছে বড় নয়। চলচ্চিত্র শিল্পের উন্নয়নই মুখ্য। কারণ চলচ্চিত্রকে নিজের জীবনের চেয়েও বেশি ভালোবাসি।

এদিকে কয়েকটি সূত্রের দাবি, তানজিন তিশাই  হবেন জাজ ও এস কে মুভিজের আয়োজনে বাংলাদেশ-ভারত যৌথ প্রযোজনার পরবর্তী ছবি ‘ধেেতরিকি’-এর  নায়িকা। রোশানের বিপরীতে জুটি বেঁধে অভিনয় করবেন তিনি। কারণ হিসেবে সূত্র বলছে, কিছুদিন আগে হাবিব ওয়াহিদের ‘ওরে মন বেপরোয়া কেন আজ’ গানের মডেল হিসেবে কাজ করেছেন তানজিন তিশা। আবারও মিউজিক ভিডিওর মডেল হওয়া প্রসঙ্গে তানজিন তিশা বলেছিলেন, কিছুদিন আগে বলেছিলাম, আমি আর মিউজিক ভিডিওতে কাজ করব না।

কারণ দুই থেকে তিন মাসের মধ্যে চলচ্চিত্রে কাজ শুরু করতে যাচ্ছি। যে সময়ের কথা তিশা বলেছিলেন, সেটাও জাজের নতুন ছবির যাত্রা শুরুর সঙ্গে মিলে যাচ্ছে। ফলে তিশাই হচ্ছেন জাজের এবারের নায়িকা। এমন কথা জোর দিয়ে বলছেন অনেকে। আর আজিজ মুচকি হেসে বলছেন, দেখা যাক কার ভাগ্যে আছে আমার উপহার।

জাজ মাল্টিমিডিয়া ২০১৩ সালে ‘ভালোবাসার রঙ’-এ বাপ্পি-মাহি, ২০১৫তে ‘আশিকি’র মাধ্যমে নুসরাত ফারিয়া ও ‘অঙ্গার’ ছবিতে জলি এবং ২০১৬-তে ‘রক্ত’ ছবির নায়ক করে আনেন নতুন মুখ রোশনকে।

এবার দেখার পালা ‘ধ্যেতরিকা’য় নায়িকা হয়ে আসছেন কে?

up-arrow