Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ২৬ এপ্রিল, ২০১৮ ১৫:৪৩ অনলাইন ভার্সন
বই লিখতে বস্তিতে ঋতুপর্ণা
অনলাইন ডেস্ক
বই লিখতে বস্তিতে ঋতুপর্ণা

'অন্বেষণ' ছবিতে একজন লেখিকার ভূমিকায় দেখা যাবে ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তকে। সাহিত্যিক প্রফুল্ল রায়ের অন্বেষণ উপন্যাস অবলম্বনে ছবিটি পরিচালনা করছেন সুজিত মণ্ডল। ছবির জন্য আলাদা করে বস্তি তৈরি করা হয়নি। শ্যামনগর বস্তি, বাগবাজার বস্তিসহ কলকাতার বিভিন্ন বস্তি এলাকাতেই 'অন্বেষণ' ছবির শুটিং হচ্ছে।

পরিচালক সুজিত মণ্ডল বলেন, এটি একটি বাঙালি মেয়ে মেয়ের গল্প। তার নাম সুজাতা। সে লন্ডনে থাকে। তার পরিবার আছে। বাবা আছেন। মেয়েটি মূলত গল্প লেখে। সুজাতার চরিত্রে অভিনয় করছেন ঋতুপর্ণা। সুজাতা রীতিমতো গবেষণা করে গল্প লেখে। তার বইটি সর্বাধিক বিক্রি হয়। তারপর সে ঠিক করে বস্তির মানুষদের নিয়ে গল্প লিখবে। বাবার কাছে জানতে চায় ভারতে এমন কোনও বস্তি আছে কিনা, যাতে যেখানে গিয়ে সে গবেষণা করতে পারে। ঋতুপর্ণার বাবার চরিত্রে আছেন দীপঙ্কর দে। আর দীপঙ্কর দের বন্ধুর চরিত্রে অভিনয় করছেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। দীপঙ্কর দে মেয়েকে সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের কাছে কলকাতায় পাঠান গবেষণার জন্য। এদিকে সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় ঋতুপর্ণাকে বলেন, যদি বস্তিবাসীদের নিয়ে লিখতে হয়, সেখানে গিয়েই থাকতে হবে তাকে। তা হলেই গবেষণা সম্পূর্ণ হবে। বস্তিতে থাকার অসুবিধা নিয়ে অনেকে অনেক কথা বলেন ঋতুপর্ণাকে। কিন্তু তাও সে বস্তিতে যায়। দিনের পর দিন বস্তিতে থাকতে থাকতে, তাদের কথা শুনতে শুনতে ঋতুপর্ণাও বস্তিবাসীদের মতো হয়ে যায়। আর সে সেখান থেকে ফিরতে পারে না। এমনকী, বস্তিবাসীদের দুঃখে প্রতিবাদ করতে শুরু করে। এটাই 'অন্বেষণ'।

বিডি প্রতিদিন/২৬ এপ্রিল, ২০১৮/ফারজানা

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow