Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : মঙ্গলবার, ৭ জুন, ২০১৬ ০০:০০ টা আপডেট : ৬ জুন, ২০১৬ ২৩:২৩
যশোরে চার লাশ
ফিলিং স্টেশনে জোড়া খুন, গণপিটুনিতে যুবক নিহত, ইছামতিতে বৃদ্ধের মরদেহ
নিজস্ব প্রতিবেদক, যশোর
যশোরে চার লাশ

যশোরে গতকাল চারটি লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সকালে এলাকাবাসীর কাছ থেকে খবর পেয়ে পুলিশ বাঘারপাড়া উপজেলার চাড়াভিটায় একটি ফিলিং স্টেশনের ভিতর থেকে এর ম্যানেজার ও স্থানীয় এক কলেজছাত্রের লাশ উদ্ধার করে। এর আগে রাত ২টার দিকে যশোর-মাগুরা সড়কে গাছের গুঁড়ি ফেলে ডাকাতি চেষ্টার সময় গণপিটুনিতে এক যুবক নিহত হন। আর ভোরে বেনাপোলের পুটখালী সীমান্তের ইছামতি নদী থেকে বাংলাদেশি এক বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার করে ভারতীয় পুলিশ।

ফিলিং স্টেশনে ডাবল মার্ডার : বাঘারপাড়া উপজেলার চাড়াভিটা এলাকায় মেসার্স বারি ফিলিং স্টেশনের ভিতর থেকে এর ম্যানেজার ওবায়দুর রহমান (৩২) ও স্থানীয় এক কলেজছাত্র লিজন আহমেদ অপুর (২৩) লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। গতকাল সকালে স্থানীয় এক ব্যক্তি জ্বালানি তেল নিতে এসে তাদের রক্তাক্ত অবস্থায় দেখতে পেয়ে স্থানীয় লোকজনকে খবর দেন। পরে স্থানীয় লোকজন বাঘারপাড়া থানায় খবর দিলে পুলিশ গিয়ে ফিলিং স্টেশনের বাইরের দরজা ভেঙে গতকাল সকাল ৮টার দিকে লাশ দুটি উদ্ধার করে। হত্যাকারীরা কুপিয়ে দুজনকে হত্যার পর লাশ দুটি কাঁথা দিয়ে ঢেকে রেখেছিল। স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, রাতে ওই ফিলিং স্টেশনে ম্যানেজার ওবায়দুর রহমান ও নজেলম্যান  (পেট্রল বা ডিজেল বিক্রিতে যিনি সহায়তা করেন) সিরাজুল ইসলাম ঘুমিয়ে থাকেন। ওই এলাকার বাসিন্দা কলেজছাত্র লিজন আহমেদের বাড়িতে সংস্কার কাজ চলায় তিনিও কয়েক দিন ধরে ওই ফিলিং স্টেশনে ঘুমাচ্ছিলেন। ধারণা করা হচ্ছে, রাতের কোনো এক সময় ওবায়দুর ও লিজনকে হত্যা করা হয়। এ ছাড়া ওই ঘটনার পর থেকে নজেলম্যান সিরাজুল ইসলামের কোনো খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে না। নিহত ওবায়দুর রহমান বাঘারপাড়া উপজেলার ধলগ্রামের রহমান মোল্লার ছেলে। আর লিজন আহমেদ অপু রঘুনাথপুর গ্রামের সদরুদ্দিন খাঁর ছেলে। তিনি যশোর এমএম কলেজের মাস্টার্স প্রথম বর্ষের ছাত্র ছিলেন। এই ফিলিং স্টেশনের মালিক বাঘারপাড়া উপজেলা বিএনপির সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার টি এস আইয়ুব। কয়েক বছর আগে তিনি ফিলিং স্টেশনটি বাঘারপাড়ার ভায়না এলাকার মাসুদ আহমেদের কাছে লিজ দেন। মাসুদ আহমেদ বলেন, রবিবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে তিনি ফিলিং স্টেশন থেকে টাকা-পয়সা হিসাব করে নিয়ে গেছেন। হত্যাকারীরা ফিলিং স্টেশনের ভিতর ক্যাশবাক্স বা অন্য কিছুতে হাত দেয়নি। ফলে পূর্বশত্রুতার কারণেই এ হত্যাকাণ্ড ঘটে থাকতে পারে বলে মনে হচ্ছে। তিনি বলেন, ফিলিং স্টেশনে রাতে নজেলম্যানও ছিল। সকাল থেকে তাকে পাওয়া যাচ্ছে না। বাঘারপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ছয়েরুদ্দিন আহমেদ বলেন, ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে দুজনকে হত্যা করা হয়েছে। এটি ডাকাতি বা চুরির ঘটনা নয়। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, পূর্বশত্রুতার কারণেই এ হত্যাকাণ্ড সংঘটিত হয়েছে। ফিলিং স্টেশনের কর্মচারী নজেলম্যান সিরাজুল ইসলাম যশোর সদর উপজেলার মুনসেফপুর এলাকার মোহাম্মদ আলীর ছেলে। তার উধাও হয়ে যাওয়ার বিষয়টি পুলিশ গুরুত্বের সঙ্গে ভাবছে বলে জানান ওসি।

গণপিটুনিতে যুবক নিহত : রবিবার দিবাগত রাত আড়াইটার দিকে যশোর-মাগুরা সড়কে গাছের গুঁড়ি ফেলে ডাকাতি চেষ্টার সময় গাড়ির লোকজন এক ডাকাতকে পাকড়াও করে গণপিটুনি দিলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। সদর উপজেলার পাঁচবাড়িয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে এ ঘটনা ঘটে। যশোর কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইলিয়াস হোসেন জানান, রাস্তায় গাছের গুঁড়ি ফেলে ডাকাতির চেষ্টা করলে একটি বাসের ধাক্কায় এক যুবক রাস্তায় পড়ে যান। পরে বাস থেকে যাত্রীরা নেমে তাকে গণপিটুনি দিলে ঘটনাস্থলেই মারা যান তিনি। নিহতের মামা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, নিহত যুবকের নাম সবুজ। তিনি সদর উপজেলার দোগাছিয়া গ্রামের বাবুর ছেলে।

সীমান্ত নদীতে বৃদ্ধের লাশ : গতকাল ভোরে বেনাপোলের পুটখালী সীমান্তের ইছামতি নদী থেকে গোলজার আলী (৭০) নামে এক বাংলাদেশি বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার করেছে ভারতীয় পুলিশ। মৃত গোলজারের ছেলে পুটখালী ইউনিয়নের ইউপি সদস্য লিয়াকত আলী জানান, তার বাবা দীর্ঘদিন ধরে মানসিক ভারসাম্যহীন ছিলেন এবং বাড়িতেই থাকতেন। শনিবার ইউপি নির্বাচনের দিন তিনি বাড়ি থেকে বের হন। দুই দিন ধরে তার কোনো খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না। গতকাল সকালে পুটখালী সীমান্তের বিপরীতে ভারতের আংরাইল ক্যাম্পের বিএসএফ সদস্যরা সে দেশের গাইঘাটা পুলিশের সহযোগিতায় ইছামতি নদী থেকে লাশটি উদ্ধার করে তাদের ক্যাম্পে নিয়ে যায়। পুটখালী বিজিবি ক্যাম্পের সুবেদার শামচুল হক জানান, লাশটি ইতিমধ্যে শনাক্ত করা হয়েছে। লাশ ফেরত দেওয়ার জন্য বিএসএফের কাছে চিঠিও দেওয়া হয়েছে।




up-arrow