Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ১ অক্টোবর, ২০১৬

প্রকাশ : শনিবার, ১১ জুন, ২০১৬ ০০:০০ টা আপডেট : ১০ জুন, ২০১৬ ২২:৪৩
শিবপুরে বিএনপি নেতাকে কুপিয়ে হত্যা
নরসিংদী প্রতিনিধি

নরসিংদীর শিবপুরে শামীম মিয়া (৩২) নামে বিএনপির এক নেতাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। গতকাল সকালে উপজেলার আইয়ূবপুর ইউনিয়নের নোয়াদিয়া কান্দাপাড়া থেকে লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। শামীম মিয়া আইয়ূবপুর ইউনিয়ন জিয়া পরিষদের আহ্বায়ক ও একই এলাকার জালাল উদ্দিনের ছেলে। পুলিশ ও নিহতের পরিবারের লোকজন জানায়, বৃহস্পতিবার রাত আনুমানিক ১২টার দিকে কে বা কারা শামীম মিয়াকে বাড়ি থেকে ডেকে নেয়। স্ত্রী পারুল বেগম গর্ভবতী হওয়ায় শামীম বাইরে থেকে দরজা তালাবদ্ধ করে যান। পরদিন শুক্রবার সকালে পথচারীরা বাড়ির পাশে শামীমের রক্তাক্ত লাশ দেখতে পান। স্থানীয়রা পরে ঘরের বেড়া কেটে নিহতের স্ত্রীকে বের করেন। খবর পেয়ে শিবপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি খোন্দকার ইমাম হোসেন ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে।

পারুল বেগম সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, এলাকার ফারুক, আমান উল্লাহ, জাইদুল ও সোহরাবের সঙ্গে তার স্বামীর জমি বন্ধক নিয়ে দ্বন্দ্ব চলছিল। এ নিয়ে বৃহস্পতিবার রাতে তাদের মধ্যে কথাকাটাকাটি হয়। এ ঘটনার জেরে তারা তার স্বামীকে হত্যা করেছে। এ ছাড়া তার জানা মতে শামীমের আর কারও সঙ্গে কোনো বিরোধ নেই।

শামীমের বাবা জালাল উদ্দিন বলেন, ‘আমি সিলেটে বসবাস করি। ছেলে হত্যার খবর পেয়ে বাড়ি ছুটে আসি।’ শামীমের এক ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে।

শিবপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খোন্দকার ইমাম হোসেন বলেন, রাতেই দুর্বৃত্তরা শামীমকে হত্যা করেছে। নিহতের শরীরের বিভিন্ন স্থানে ধারালো অস্ত্রের আঘাত রয়েছে। পুলিশ হত্যার রহস্য উদ্ঘাটন ও খুনিদের গ্রেফতারে অভিযান চালাচ্ছে।




এই পাতার আরো খবর
up-arrow