Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : সোমবার, ২০ জুন, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৯ জুন, ২০১৬ ২৩:৩৩
আলেমদের ফতোয়ায় ভারত খুশি : সুষমা
প্রতিদিন ডেস্ক

বাংলাদেশে সংখ্যালঘুদের ওপর হামলার ঘটনায় আলেমরা যে ফতোয়া দিয়েছেন তাতে ভারত খুশি। প্রকাশ্যে যখন হাজার হাজার ধর্মীয় নেতা হিন্দুদের ওপর হামলার বিরুদ্ধে সরব হতে পারেন, তখন বাংলাদেশের সরকার ও দেশের মানুষ অবশ্যই এই সব হামলার বিরুদ্ধে।

দিল্লিতে গতকাল বার্ষিক সংবাদ সম্মেলনে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ এ কথা বলেন। খবর বিবিসি বাংলার। এদিকে জঙ্গি ও সন্ত্রাসবাদ দমনে বাংলাদেশের প্রয়োজনে ভারত সহযোগিতা করতে প্রস্তুত বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত হাইকমিশনার হর্ষবর্ধন শ্রিংলা। তিনি বলেন, বাংলাদেশ চাইলে যে কোনো ধরনের সহযোগিতায় ভারত প্রস্তুত আছে। আইএস পরিচয় দিয়ে চিঠিতে হুমকির পর গতকাল দুপুরে রাজধানী ঢাকায় রামকৃষ্ণ মিশন পরিদর্শনকালে ভারতীয় হাইকমিশনার এসব কথা বলেন। এ সময় তিনি রামকৃষ্ণ মিশনের নিরাপত্তা জোরদার করায় বাংলাদেশ সরকারের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান। সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে হর্ষবর্ধন শ্রিংলা বলেন, এখানকার কর্তৃপক্ষ শুধু ঢাকায় রামকৃষ্ণ মিশন নয়, বাংলাদেশের ৪০টি কেন্দ্রের লোকজনকে নিরাপত্তা দিতে সক্ষম। এ ব্যাপারে আমাদের আস্থা আছে। তবে হুমকির পর পরই পুলিশ ও বাংলাদেশ সরকার তাত্ক্ষণিক যে পদক্ষেপ নিয়েছে, তাতে আমরা কৃতজ্ঞ। কাজেই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেওয়ার জন্য যেসব পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে, তাতেও আমরা সন্তুষ্ট। ’ ভারতীয় হাইকমিশনার আরও বলেন, হুমকির ঘটনার পর থেকেই ঢাকায় ভারতীয় হাইকমিশনের কর্মকর্তারা রামকৃষ্ণ মিশন কর্তৃপক্ষ ও বাংলাদেশের সরকারের সঙ্গে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রেখে চলেছেন। রামকৃষ্ণ মঠের অধ্যক্ষ ও মিশনের সম্পাদক স্বামী ধ্রুবেশানন্দ সাংবাদিকদের বলেন, ‘হুমকির চিঠি পাওয়ার পর পরই পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। পুলিশ সঙ্গে সঙ্গে ফোর্স পাঠিয়ে দিয়েছে। থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি লিপিবদ্ধ করেছে। ওই ঘটনার পর থেকে মিশনের আশপাশে নিরাপত্তা বাড়ানো হয়েছে। পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের পর খাতায় নাম-পরিচয় লিপিবদ্ধ করে লোকজনের রামকৃষ্ণ মিশনে প্রবেশের বিষয়টি নিশ্চিত করছে। পুলিশের নেওয়া পদক্ষেপের পর আমরা নিরাপত্তার ব্যাপারে নিশ্চিত হয়েছি। ’ প্রসঙ্গত, গত বুধবার সন্ধ্যায় হত্যার হুমকি দিয়ে রামকৃষ্ণ মিশনে একটি চিঠি আসে। ওই চিঠির ওপরের অংশে কম্পিউটার টাইপে লেখা ‘ইসলামিক স্টেট অব বাংলাদেশ, চান্দনা চৌরাস্তা ঈদগাহ মার্কেট, গাজীপুর মহানগর’। প্রেরকের নাম এ বি সিদ্দিক। চিঠিতে উল্লেখ রয়েছে, ‘তোমরা হিন্দু। বাংলাদেশ একটি ইসলামী রাষ্ট্র, এ দেশে ধর্ম প্রচার করতে পারবে না। তোমরা ভারতে যাও। না হলে তোমাদের কুপিয়ে হত্যা করা হবে। ’

up-arrow