Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : মঙ্গলবার, ২৮ জুন, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ২৭ জুন, ২০১৬ ২৩:৩২
রাষ্ট্রীয় তিন ব্যাংকে আসছেন নতুন এমডি
রুকনুজ্জামান অঞ্জন

সোনালী, অগ্রণী ও রূপালী রাষ্ট্রীয় এই তিন বাণিজ্যিক ব্যাংকের শীর্ষ পদে কর্মরতদের চুক্তির মেয়াদ আর বাড়ানো হচ্ছে না। প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য নতুন এমডি ও সিইও খোঁজা হচ্ছে। এর মধ্যে সোনালী ও অগ্রণী ব্যাংকের শীর্ষ পদ পূরণে দুটি সার্চ কমিটি গঠন করা হয়েছে। ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে। সূত্রগুলো জানায়, গত ১৬ জুন সোনালী ব্যাংকে প্রদীপ কুমার দত্তের চুক্তির মেয়াদ শেষ হওয়ায় এমডি ও সিইও-এর পদটি খালি হয়েছে। সেখানে একজন ডিএমডি পদমর্যাদার কর্মকর্তা ভারপ্রাপ্ত এমডি হিসেবে প্রধান নির্বাহীর দায়িত্ব সামলাচ্ছেন। সামনের মাসেই মেয়াদ শেষ হবে অগ্রণী ও রূপালী এই দুই ব্যাংকের এমডি ও প্রধান নির্বাহীর। আর সরকারের এই তিনটি গুরুত্বপূর্ণ ব্যাংকের এমডি পদে যোগ্যপ্রার্থী অনুসন্ধান করা হচ্ছে। জানা গেছে, তিন ব্যাংকের এমডি ও সিইও চুক্তির মেয়াদ বাড়ানোর চেষ্টা করেছিলেন। তবে রাষ্ট্র মালিকানাধীন ব্যাংকগুলোর সামগ্রিক পারফরমেন্স আশানুরূপ না হওয়ায় মেয়াদ বাড়ানোর বিষয়টি বিবেচনা করা হয়নি সরকারের শীর্ষ পর্যায় থেকে। এর মধ্যে রাষ্ট্রীয় একটি ব্যাংকের এমডি মেয়াদ বাড়ানোর জন্য লিখিত আবেদনও করেছিলেন। সেই আবেদন নাকচ করে দেয় অর্থ মন্ত্রণালয়। শুধু তাই নয়, চাকরির শেষ সময়ে বিদেশ সফরের তালিকা থেকেও নাম প্রত্যাহার করা হয় ওই এমডির। ব্যাংকিং বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত ফাইল পাঠানো হলে গত সপ্তাহে তা অনুমোদন না করেই প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে ফেরত দেওয়া হয়েছে বলে সূত্রগুলো জানিয়েছে।   

ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব ইউনুছুর রহমান বাংলাদেশ প্রতিদিনকে বলেন, সোনালী ব্যাংকের এমডি ও সিইও মেয়াদ শেষে অবসরে গেছেন। সামনের মাসে অগ্রণী ও রূপালী ব্যাংকের এমডি ও সিইও-এর মেয়াদও শেষ হবে। রাষ্ট্রীয় ব্যাংকগুলোর শীর্ষ পদ শূন্য হলে সেখানে রীতি অনুযায়ী নিয়োগ প্রক্রিয়া শুরু হবে। সূত্র জানায়, সোনালী ও অগ্রণী ব্যাংকের এমডি ও সিইও পদে যোগ্যপ্রার্থী খুঁজে বের করার লক্ষ্যে এরই মধ্যে দুই ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদের চেয়ারম্যানের নেতৃত্বে দুটি সার্চ কমিটি হয়েছে। অগ্রণী ব্যাংক গত ২০ জুন চিঠি দিয়ে ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানকে কমিটি গঠনের বিষয়টি অবহিত করেছে। তবে এই কমিটি কতদিনের মধ্যে তাদের কাজ শেষ করবে সে বিষয়ে স্পষ্ট কোনো নির্দেশনা নেই চিঠিতে। প্রসঙ্গত, চুক্তির মেয়াদ শেষ হওয়ায় সম্প্রতি অবসরে যাওয়া প্রদীপ কুমার দত্ত ১৭ জুন ২০১২ থেকে ১৬ জুন ২০১৬ পর্যন্ত চার দফায় চুক্তিতে সোনালী ব্যাংকের এমডি ও সিইও হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। এর মধ্যে নিয়মিত ১ বছর ১১ মাস ও চুক্তিভিত্তিক ৪ বছর মিলিয়ে মোট ৫ বছর ১১ মাস তিনি ব্যাংকটির প্রধান নির্বাহীর দায়িত্বে ছিলেন। অগ্রণী ব্যাংকের এমডি ও সিইও সৈয়দ আবদুল হামিদের বর্তমান চুক্তির মেয়াদ শেষ হবে আগামী ১০ জুলাই। তিনি ২০১০ সালের ১০ জুলাই থেকে ৪ মেয়াদে চুক্তিতে মোট ৬ বছর ধরে ব্যাংকটির প্রধান নির্বাহী পদে রয়েছেন।   আরেক রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক রূপালীর এমডি ও সিইও এম ফরিদ উদ্দিনের মেয়াদও তিন দফায় চুক্তিতে বাড়ানো হয়। আগামী ৬ জুলাই তার চুক্তির মেয়াদ শেষ হচ্ছে। নিয়মিত এক বছর ৪ মাস ও চুক্তিভিত্তিক ৫ বছরসহ মোট ৬ বছর ৪ মাস ধরে তিনি ব্যাংকটির শীর্ষ পদে দায়িত্ব পালন করছেন।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow