Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : রবিবার, ১০ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৯ জুলাই, ২০১৬ ২৩:৪৪
কৃষ্ণাঙ্গ খুন নিয়ে উত্তপ্ত যুক্তরাষ্ট্র পাঁচ পুলিশকে গুলি করে হত্যা
প্রতিদিন ডেস্ক

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রে পুলিশের গুলিতে দুজন কৃষ্ণাঙ্গ নিহত হন। ওই ঘটনার প্রতিবাদে গত বৃহস্পতিবার রাতে টেক্সাসের ডালাসে কৃষ্ণাঙ্গদের বিক্ষোভের একপর্যায়ে এক ব্যক্তি গুলি করে পাঁচ শ্বেতাঙ্গ পুলিশকে হত্যা করেছে। এরপর শুক্রবার সকালে বন্দুকধারীও নিহত হন। নিহত ওই বন্দুকধারীর নাম মিকাহ জেভিয়ার জনসন। কৃষ্ণাঙ্গ এই ব্যক্তি মার্কিন সেনাবাহিনীতে কর্মরত ছিলেন। আফগানিস্তানে ন্যাটো বাহিনীর হয়ে লড়েছিলেন তিনি। কৃষ্ণাঙ্গ নাগরিকের ওপর পুলিশের গুলির প্রতিবাদ জানাতে তিনি এই সহিংস ঘটনা ঘটান। পরে তাকে যে পন্থায় মারা হয়, তা নিয়ে দেশটিতে নতুন করে বিতর্ক দেখা দিয়েছে। তাকে রোবট বোমা ব্যবহার করে হত্যা করা হয়েছে। ডালাস পুলিশ প্রধান ডেভিড ব্রাউন বলেন, বিক্ষোভ চলাকালে গুপ্তঘাতকের ছোড়া গুলিতে ১০ পুলিশ আহত হন। পরে সন্দেহভাজন এক হামলাকারীর সঙ্গে পুলিশের গুলিবিনিময় হয়। এ সময় আরও এক পুলিশ আহত হন। ওই পুলিশ সদস্যকে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের দেশটির মিনেসোটার সেন্ট পলের কাছে গত বুধবার পুলিশের গুলিতে ফিল্যান্ডো ক্যাস্টিল (৩২) নামে এক আফ্রিকান বংশোদ্ভূত এক আমেরিকান নিহত হন। এর কয়েক মিনিট পরেই তার বান্ধবী ইন্টারনেটে এ ঘটনার ভিডিও প্রকাশ করে। এর একদিন আগেই আফ্রিকান বংশোদ্ভূত আরেক আমেরিকান অ্যাল্টন স্টার্লিংকে (৩৭) লুজিয়ানায় দুই শ্বেতাঙ্গ পুলিশ গুলি করে হত্যা করে। সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে এই হত্যাকাণ্ডের ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে। এতে ব্যাপক সমালোচনা হয়। এসব হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদেই বৃহস্পতিবার রাতে ডালাসে বিক্ষোভ হয়।

রোবট বোমার সমালোচনা : ডালাসে পাঁচ পুলিশ হত্যাকরী বন্দুকধারীকে রোবট বোমা ব্যবহার করে নিহত করা হয়েছে। তবে এই রোবট বোমা ব্যবহারের সমালোচনা শুরু হয়েছে দেশটিতে। মার্কিন আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীতে প্রযুক্তির ব্যবহার বিষয়ে নজর রাখা ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়ার আইনের অধ্যাপক এলিজাবেথ জোহ এ ধরনের প্রযুক্তি ব্যবহারের বিপক্ষে মত দিয়েছেন। তবে এ ধরনের কৌশল ব্যবহারের যৌক্তিকতা তুলে ধরে ডালাসের পুলিশ প্রধান ডেভিড ব্রাউন বলেন, ‘অন্য কোনো কৌশল ব্যবহার করলে আমাদের কর্মকর্তারা আরও বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারতেন। ’ ডালাসের পুলিশ প্রধানের পক্ষে অবস্থান নিয়েছেন মেয়র মাইক রাউলিংস। তিনি বলেন, ‘যখন আর কোনো উপায় থাকে না, সে ক্ষেত্রে এটা ভালো উদাহরণ বলে আমার মনে হয়। মূল বিষয় হলো, পুলিশ বাহিনীকে কোনো ধরনের ক্ষয়ক্ষতি থেকে দূরে রাখা। ’ মার্কিন সেনারা এই প্রযুক্তি ইরাক ও আফগানিস্তানে ব্যবহার করেছে। সেনাবাহিনী থেকে বাড়তি যন্ত্রপাতি পুলিশে আনতে মার্কিন প্রতিরক্ষা বিভাগের নেওয়া একটি কর্মসূচির আওতায় এগুলো পুলিশের কাছে আসে।

ডালাস হামলায় সন্দেহভাজনের বাড়িতে বোমার সরঞ্জাম : পাঁচ পুলিশকে গুলি করে হত্যার ঘটনায় সন্দেহভাজন মিকাহ জনসনের বাড়িতে বোমা তৈরির সরঞ্জাম, রাইফেল, গোলাবারুদ ও যুদ্ধ-বিষয়ক সাময়িকী পাওয়া গেছে। ডালাসে দীর্ঘ সময় ধরে পুলিশের অভিযানের পর জনসন রোবট বোমার আঘাতে নিহত হন। ডালাসের মেয়র মাইক রলিংস বলেন, তারা মনে করছেন, পুলিশকে গুলি করা ঘটনায় মিকাহ জনসনই একমাত্র বন্দুকধারী ছিলেন। শুক্রবার এক সংবাদ সম্মেলনে মেয়র রলিংস বলেন, এখন তারা শহরকে নিরাপদ মনে করছেন। পুলিশ বলছে, ওই বন্দুকধারী জর্জিয়া, মিজৌরি ও টেনেসিতেও পুলিশকে হামলার লক্ষ্যবস্তু করেছিল। এএফপি, বিবিসি, এনডিটিভি।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow