Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৩১ আগস্ট, ২০১৬ ২৩:২৪
নেতা হতে চাই না, অভিনেতাই ভালো
নিজস্ব প্রতিবেদক
নেতা হতে চাই না, অভিনেতাই ভালো

বিএনপিতে এবার বঞ্চনার শিকার জাসাসের সাবেক সাধারণ সম্পাদক বাবুল আহমেদ বলেছেন, আর নেতা হতে চাই না, আমি অভিনেতা, অভিনেতা হিসেবেই থাকতে চাই। অনেক হয়েছে।

যাই হোক না কেন তারপরও বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সঙ্গেই থাকব। বাংলাদেশ প্রতিদিনকে তিনি বলেন, ১৯৭৮ সালে রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের হাত ধরে বিএনপির সাংস্কৃতিক অঙ্গনে      যোগদান করি। তার পর থেকে জিয়াউর রহমানের সঙ্গে যতবার দেখা হয়েছে ততবারই তিনি আলতো হাতে আমার বুকে ঘুষি মেরে বলেছেন, ‘হাই কালচার হাউ আর ইউ?’ আজ জিয়াউর রহমানও নেই, এমন হূদয়ছোঁয়া ডাক দেওয়ার লোকও নেই। আজকের রাজনীতিতে কেন যেন নিজেকে খুব ছোট লাগে। কারণ বর্তমানে কেন্দ্রীয় নেতা হতে বাটারিং, ফ্লাটারিং, অয়েলিং এবং ফুয়েলিংয়ের মতো যেসব যোগ্যতা লাগে তার কোনোটাই আমার নেই। মিথ্যার বেসাতি ও পারস্পরিক কুত্সা রটিয়ে পদপদবি লাভের অসুস্থ প্রতিযোগিতায় আমি একেবারেই বেমানান। আন্দোলন-সংগ্রামসহ এমন কোনো সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ড ছিল না, যেখানে আমি অনুপস্থিত ছিলাম। আমার দৃঢ় বিশ্বাস, কেউ না কেউ আমার বিরুদ্ধে দেশনেত্রীর কান ভারি করার চেষ্টা করেছে। নইলে এতটা বঞ্চনার শিকার আমার হওয়ার কথা নয়। তবুও নেত্রীর সঙ্গেই ছিলাম, আছি এবং থাকব। তবে আমার মতো এমন অবমূল্যায়নের শিকার ত্যাগী, বঞ্চিতদের বিষয়টি নেত্রী পুনর্বিবেচনা করবেন বলে আশা করি।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow