Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শুক্রবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : শুক্রবার, ২ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২২:৫৮
মানুষ পুড়িয়ে জঙ্গিবাদ প্রতিষ্ঠা করে গণতন্ত্র হয় না
পটুয়াখালী প্রতিনিধি
মানুষ পুড়িয়ে জঙ্গিবাদ প্রতিষ্ঠা করে গণতন্ত্র হয় না
আনিসুল ইসলাম মাহমুদ

পানিসম্পদমন্ত্রী ও জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ বিএনপিকে উদ্দেশ করে বলেছেন, মানুষ পুড়িয়ে, জঙ্গিবাদ প্রতিষ্ঠা করে গণতন্ত্রকে পুনরুদ্ধার করা যায় না। এর জন্য জনগণের সঙ্গে থাকতে হয়, তাদের দুঃখ-দুর্দশায় পাশে দাঁড়াতে হয়।

গতকাল দুপুরে পটুয়াখালী জেলার দুমকি উপজেলার আঙ্গারিয়ার বাহেরচর গ্রামে নদী ভাঙন এলাকা পরিদর্শন  শেষে হাওলাদার বাড়ির আঙিনায় জাতীয় পার্টি আয়োজিত পথসভায় তিনি এ কথা বলেন। তিনি বলেন, জাতীয় পার্টি জনগণের সঙ্গে এবং তাদের দুঃখ-দুর্দশায় কাছে থাকতে সরকারের সঙ্গে গণতন্ত্রের ধারায় কাজ করছে। তিনি আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে বর্তমান সরকারের প্রতিনিধিরা জনগণের সঙ্গে মিলে তাদের সমস্যা সমাধান করার চেষ্টা করছেন। কিন্তু জঙ্গিবাদের মদদদাতারা গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার নামে মানুষকে পুড়িয়ে মারতে, দেশে নৈরাজ্য সৃষ্টি এবং দেশের অর্থনৈতিক শক্তিকে দুর্বল করতে মরিয়া চেষ্টা করছে। তারা দেশের চলমান উন্নয়নকে ব্যাহত করতে নানা অনৈতিক কর্মকাণ্ড চালিয়ে সাধারণ মানুষের মাঝে আতঙ্ক সৃষ্টি করতে চাইছে। কিন্তু দেশের মানুষ সব বুঝতে পেরেছেন, তাই জনগণ তাদের পাশে নেই।

দুমকি উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি সুলতান আহমেদ হাওলাদারের সভাপতিত্বে এ সভায় আরও বক্তব্য রাখেন পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী মো. নজরুল ইসলাম, পটুয়াখালী ১ আসনের সংসদ সদস্য ও জাতীয় পার্টির মহাসচিব এ বি এম রুহুল আমীন হাওলাদার, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ খান মোশারফ হোসেন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাজী আলমগীর হোসেন প্রমুখ। পানিসম্পদমন্ত্রী এ সময় নদী ভাঙন কবলিত এলাকায় বেড়িবাঁধ নির্মাণের প্রতিশ্রুতি দেন এবং বর্ষা মৌসুমসহ জোয়ারে যাতে পটুয়াখালী পৌরশহর প্লাবিত না হয়— সে জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দেন।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow