Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২৩:১২
জাতিসংঘে এলডিসি সভায় সভাপতির আসনে বাংলাদেশ
কূটনৈতিক প্রতিবেদক

জাতিসংঘের ৭১তম সাধারণ অধিবেশনের সাইডলাইনে অনুষ্ঠিত স্বল্পোন্নত দেশগুলোর (এলডিসি) বার্ষিক সভায় বাংলাদেশের সভাপতিত্বের ভূয়সী প্রশংসা করেছে সদস্য রাষ্ট্রগুলো। জাতিসংঘের সদর দফতরে স্থানীয় সময় শনিবার এই মন্ত্রী পর্যায়ের সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভাপতি হিসেবে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী স্বল্পোন্নত দেশগুলোকে তাদের উন্নয়ন প্রচেষ্টায় অধিকতর সহায়তা প্রদানের জন্য উন্নত দেশগুলোর প্রতি আহ্বান জানান। বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী সভায় সভাপতিত্ব করেন। নিউইয়র্ক থেকে জাতিসংঘে বাংলাদেশ স্থায়ী মিশনের বার্তায় এ তথ্য জানানো হয়। স্থায়ী মিশন জানিয়েছে, স্বল্পোন্নত দেশগুলোর মন্ত্রী পর্যায়ের এই সভায় স্বল্পোন্নত দেশসমূহ, তাদের উন্নয়ন সহযোগী উন্নত এবং মধ্যম আয়ের দেশসমূহের মন্ত্রী ও উচ্চপর্যায়ের প্রতিনিধি এবং জাতিসংঘের পদস্থ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। স্বল্পোন্নত দেশগুলোর আন্তর্জাতিক পর্যায়ে গৃহীত বিভিন্ন উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রাসমূহ অর্জনের জন্য অবকাঠামো বিদ্যুৎ, কৃষি, তথ্যপ্রযুক্তি এবং দক্ষতা বৃদ্ধিতে অধিকতর বিনিয়োগের প্রয়োজন বলে সভাপতি মাহমুদ আলী উল্লেখ করেন। জাতিসংঘের ডেপুটি সেক্রেটারি জেনারেল ইয়ান ইলিয়াসন বলেন, শরণার্থী এবং অভিবাসী মোকাবিলায় গত ১৯ সেপ্টেম্বর গৃহীত নিউইয়র্ক ডিক্লারেশনের বাস্তবায়নে স্বল্পোন্নত দেশগুলোকে অবশ্যই অগ্রাধিকার ভিত্তিতে সাহায্য করতে হবে। জাতিসংঘের ৭১তম অধিবেশনের সভাপতি পিটার থমসন সব সরকারকে টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যসমূহকে জাতীয় শিক্ষা কার্যক্রমের অন্তর্ভুক্ত করার আহ্বান জানান। সভায় অংশগ্রহণকারী স্বল্পোন্নত দেশগুলো ২০৩০ এজেন্ডা এবং স্বল্পোন্নত দেশগুলোর উন্নয়ন সনদ ‘ইস্তাম্বুল প্রোগ্রাম অব অ্যাকশন (আইপিওএ)’ বাস্তবায়নে বিভিন্ন চ্যালেঞ্জের কথা তুলে ধরেন। উন্নয়ন সহযোগী দেশগুলো বৈদেশিক সাহায্য, বাণিজ্য, বিনিয়োগ এবং প্রযুক্তি সরবরাহের ক্ষেত্রে স্বল্পোন্নত দেশগুলোকে সাহায্য প্রদান অব্যাহত রাখার ব্যাপারে আশ্বাস প্রদান করে। সভায় স্বল্পোন্নত দেশগুলোর চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় কিছু সুপারিশ সংবলিত একটি ‘মিনিস্টারিয়াল ডিক্লারেশন’ গৃহীত হয়। সভায় ‘স্টেট অব দ্য লিস্ট ডেভেলপমেন্ট কান্ট্রিস ২০১৬’ শীর্ষক জাতিসংঘের একটি রিপোর্টের মোড়ক উন্মোচন করা হয়।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow