Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : শুক্রবার, ৭ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৬ অক্টোবর, ২০১৬ ২২:৫২
প্রতীক্ষার সিরিজ শুরু
বাংলাদেশ ইংল্যান্ড
আসিফ ইকবাল
প্রতীক্ষার সিরিজ শুরু
ট্রফি হাতে বাংলাদেশ দলের ক্যাপ্টেন মাশরাফি ও ইংল্যান্ড দলের বাটলার

সিরিজের ভবিষ্যৎ নিয়ে কত শঙ্কা, কত সংশয়। আদৌ মাঠে গড়াবে কি না, এ নিয়েও ছিল হাজার প্রশ্ন।

ইংল্যান্ডকে ঢাকায় আনতে চেষ্টার সর্বোচ্চটা ছিল বিসিবির। কম যায়নি বাংলাদেশ সরকার। ইংলিশ ক্রিকেটারদের সর্বোচ্চ নিরাপত্তার আশ্বাসও দেয়। নিরাপত্তার সব ধরনের আশ্বাসের পরই তিন ওয়ানডে ও দুই টেস্ট খেলতে ঢাকায় আসে ক্রিকেট জনকেরা। এরপর সবকিছু চলেছে তার আপন গতিতে। জস বাটলার, মঈন আলীরা অনুশীলন করেছেন নিশ্ছিদ্র      নিরাপত্তায়। বহুল প্রতীক্ষিত সিরিজের প্রথম ম্যাচ খেলতে আজ মিরপুর স্টেডিয়ামে নামছে দুই দল। সিরিজটি নিয়ে ক্রিকেটপ্রেমী বাঙালির উৎকণ্ঠার শেষ ছিল না। সিরিজটিতে যাতে কোনোরকম সংশয় না থাকে, কোনো টেনশন না থাকে, এজন্য সরকার থেকে দেওয়া হচ্ছে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা। বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর মহড়াই তার শেষ কথা। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে বাংলাদেশ প্রথম ম্যাচ খেলে ২০০০ সালে নাইরোবিতে। নক আউট বিশ্বকাপের ওই টুর্নামেন্টে টাইগারদের উড়িয়ে দিয়েছিল ইংলিশরা। ২০১৫ সালের বিশ্বকাপ ক্রিকেট পর্যন্ত দুই দল খেলেছে ১৬ ম্যাচ। যাতে ৩ জয়ের বিপক্ষে মাশরাফিদের হার ১৩টি। আশ্চর্য হলেও সত্যি, ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সর্বশেষ মোকাবিলার দুটিতেই জয়ের হাসি হেসেছেন মাশরাফিরা। ২০১১ সালের বিশ্বকাপে ইংলিশদের ২ উইকেটে হারানোর ম্যাচটিতে টাইগাররা জিতেছিল মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ ও শফিউল ইসলাম সুহাসের অবিশ্বাস্য জুটিতে। ২২৬ রানের টার্গেট তাড়া করতে নেমে ১৬৯ রানে ৮ উইকেট হারিয়ে বাংলাদেশ যখন নিশ্চিত হারের পথে, তখনই নবম উইকেটে জুটিতে ৫৮ রান যোগ করে দুর্দান্ত জয় উপহার দেন দুই ক্রিকেটার। চার বছর পর দুই দল ফের মুখোমুখি হয় বিশ্বকাপে। অ্যাডিলেডের ম্যাচটি দুই দলের জন্যই ছিল মরা বাঁচার লড়াই। জয়ী দল কোয়ার্টার ফাইনাল খেলবে-এমন সমীকরণের ম্যাচে বিশ্বকাপে বাংলাদেশের প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে সেঞ্চুরি করেন মাহমুদুল্লাহ। তার সেঞ্চুরিতেই ১৫ রানের জয় পায় টাইগাররা। সর্বশেষ দুই ম্যাচের আত্মবিশ্বাসকে পুঁজি করে আজ প্রথম ওয়ানডেতে ভালো খেলার কথা বললেন টাইগার অধিনায়ক মাশরাফি, ‘বিশ্বকাপের মতো বড় আসরে জয় আমাদের জন্য বাড়তি উদ্দীপনা। তবে সেসব অতীত। আমরা গত দেড় বছর ধরে ভালো ক্রিকেট খেলছি। সেই ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে পারলে ভালো ফল করব বলে বিশ্বাস। ’ চলতি বছর ৩০ ম্যাচে ১৭ জয়ের পরও ইংলিশ অধিনায়ক জস বাটলার এগিয়ে রাখলেন বাংলাদেশকে। অবশ্য বাংলাদেশ চলতি বছরে দ্বিতীয় সিরিজ খেলতে নামছে আজ। আগের সিরিজটিতে ২-১ ব্যবধানে আফগানিস্তানকে হারায় বাংলাদেশ। বাংলাদেশ কিংবা ইংল্যান্ড যে দলই সিরিজে ফেবারিট হোক না কেন, বহুল আকাঙ্ক্ষার সিরিজটি মাঠে গড়াতেই পাহাড়সম চাপ নেমে যাবে বাংলাদেশের উপর থেকে, এটা নিশ্চিত করেই বলা যায়।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow